kalerkantho


বান্দরবানে আগুনে ১৫ দোকান ও ৫ ঘর ছাই

নিজস্ব প্রতিবেদক, বান্দরবান   

১২ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:০০



বান্দরবান পৌর এলাকার ক্য চিং ঘাটা বাজারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ১৫টি দোকানঘর এবং ৫টি বসতঘর পুড়ে গেছে। এ সময় একটি এলপি গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরিত হলে একজন নারীসহ ৬ জন আহত হন। তাঁদেরকে বান্দরবান সদর হাসপাতালে চিকিৎসাসেবা দেওয়া হচ্ছে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, বুধবার দিবাগত রাত সোয়া চারটার দিকে একটি মোটর মেকানিকের দোকান থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়ে মুহূর্তেই তা আশপাশে ছড়িয়ে পড়ে। তবে অগ্নিকাণ্ডের প্রকৃত কারণ এবং ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ জানা যায়নি।

স্থানীয়রা অভিযোগ করেন, আগুন লাগার সাথে সাথেই বান্দরবান ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেওয়া হয়। কিন্তু ঘটনাস্থল থেকে মাত্র ৫০০ মিটার দূরের ফায়ার সার্ভিস স্টেশন থেকে অগ্নি নির্বাপণকর্মীরা ঘটনাস্থলে পৌঁছলেও তাঁরা পাম্প মেশিন চালু করতে ব্যর্থ হন। এ সময় এলাকাবাসী উত্তেজিত হয়ে পড়েন এবং ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের ওপর হামলা চালান।

এদিকে অগ্নিকাণ্ডের খবর পেয়ে পার্শ্ববর্তী সাতকানিয়া থেকে ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছে স্থানীয়দের সহায়তায় টানা চার ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়।

বান্দরবানের জেলা প্রশাসক দাউদুল ইসলাম, পুলিশ সুপার জাকির হোসেন মজুমদার এবং বান্দরবান পৌরসভার মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ ইসলাম বেবী ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

বান্দরবান পৌরসভার পক্ষ থেকে ক্ষতিগ্রস্তদের মধ্যে ত্রাণ সহায়তা দেওয়া হয়েছে।

জেলা প্রশাসক দাউদুল ইসলাম জানান, অগ্নি নির্বাপণে বান্দরবান ফায়ার সার্ভিসের ব্যর্থতার বিষয়টি তিনি জানতে পেরেছেন। তদন্তসাপেক্ষে এ বিষয়ে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।



মন্তব্য