kalerkantho


চট্টেশ্বরী সড়কে ‘জহুর-মান্নান চত্বর’ উদ্বোধন

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



নগরে এতদিন পরিকল্পিত উন্নয়ন হয়নি বলে মন্তব্য করেছেন সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন। তিনি বলেন, ‘শহরের গুণী ও বরেণ্যজনদের নামে সড়ক কিংবা কোনো চত্বর ছিল না। তাই বর্তমান প্রজন্মে এসব গুণী ব্যক্তি সম্পর্কে জানারও সুযোগ ছিল না। বর্তমান সরকার মুক্তিযুদ্ধের সরকার। মুক্তিযোদ্ধাদের অবদান আগামী প্রজন্মের কাছে তুলে ধরতে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নানা পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। এরই ধারাবাহিকতায় আমি দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকে নগরের প্রধান প্রধান সড়কদ্বীপ, চত্বরগুলো নতুন আঙ্গিকে সাজানোর প্রয়াস চালিয়ে যাচ্ছি।’

শুক্রবার নগরের চট্টেশ্বরী সড়কে ‘জহুর-মান্নান চত্বর’ উদ্বোধন উপলক্ষে সুধী সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন। মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক, আওয়ামী লীগ নেতা, সাবেকমন্ত্রী মরহুম জহুর আহমদ চৌধুরী ও মরহুম এম এ মান্নানের নামে এ চত্বর উদ্বোধন করা হয়। চসিকের উদ্যোগে এ চত্বর নির্মাণ করা হয়।

উল্লেখ্য, মহান মুক্তিযুদ্ধে জহুর আহমদ চৌধুরী ছিলেন পূর্বাঞ্চলীয় চেয়ারম্যান ও যুদ্ধপরবর্তী মুজিব সরকারের মন্ত্রী। আর মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক এম এ মান্নান ছিলেন চট্টগ্রাম নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং ১৯৯৬-২০০১ আওয়ামী লীগ সরকারের শ্রম ও কর্মসংস্থানমন্ত্রী।

শুক্রবার ওই চত্বর উদ্বোধনের আগে এম এ মান্নানের কবরে চসিকের পক্ষে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন মেয়র।

স্থানীয় বাগমনিরাম জামে মসজিদে এ উপলক্ষে মিলাদ মাহফিলে অংশ নেন তিনি। 

মেয়র বলেন, ‘চট্টগ্রাম নগরকে বিশ্বমানের, পরিবেশবান্ধব, পরিচ্ছন্ন ও সৌন্দর্যমণ্ডিত নগরীতে পরিণত করতে চাই। এ জন্য নিজেদের কার্যক্রমের পাশাপাশি বেসরকারি উদ্যোক্তাদেরও সুযোগ দেওয়া হচ্ছে।’

তিনি নগরের গুরুত্বপূর্ণ মোড় ও সড়কদ্বীপসমূহের সৌন্দর্যবর্ধন কাজে বেসরকারি উদ্যোক্তাদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মরহুম জহুর আহমেদ চৌধুরীর ছেলে ও নগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী, সিডিএ চেয়ারম্যান আবদুচ ছালাম, স্থানীয় বাগমনিরাম ওয়ার্ড কাউন্সিলর গিয়াস উদ্দিন প্রমুখ।



মন্তব্য