kalerkantho


শিশুপার্কের জমিতে হবে তিন খেলার মাঠ : গণপূর্তমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



ঐতিহাসিক জাম্বুরি মাঠের আয়তন ১৬.২১ একর। এর মধ্যে আট একর জমিতে আগে থেকেই আছে শিশুপার্ক। বাকি সাড়ে আট একর জমিতে গড়ে তোলা হলো জাম্বুরি পার্ক। শিশুপার্কের জমিতে তিনটি খেলার মাঠ গড়ে তোলার ঘোষণা দিয়েছেন গৃহায়ন ও গণপূর্তমন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন।

শনিবার জাম্বুরি পার্ক উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, ‘সেখানে মামলা চলছে, মামলা নিষ্পত্তি করার পর সেই জমিতে ফুটবল, ক্রিকেট ও হকি খেলার মাঠ গড়ে তোলা হবে। এই মাঠে যাতে রাতেও খেলতে পারেন সেই ব্যবস্থাও করে দেব। এ জন্য কারও কাছ থেকে টাকা নেওয়া হবে না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাই মাঠ গড়ে তোলার টাকা দেবেন।’ এ ছাড়া বায়েজিদ এলাকায় তিন একর জমিতে পার্ক গড়ে তোলা হচেছ। অক্টোবরে সেটি চালু হবে বলে ঘোষণা দেন মন্ত্রী।

জাম্বুরি পার্ক উদ্বোধনের আগে বিকেলে চট্টগ্রামের সিজিএস কলোনিতে পুরাতন ভবন ভেঙে সেখানে নয়টি ২০তলা বহুতল ভবন গড়ার ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন। যেখানে আধুনিক সব সুযোগ-সুবিধা থাকবে। আগামী ১৮ মাসের মধ্যে সেগুলো নির্মাণ করা হবে।

নাসিরাবাদে ৩৩ বাড়ির মামলার রায় সরকার পেয়েছে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, ‘সেই জমিতে ডিপিপি করে বহুতল ভবন তৈরি করা হবে। যাতে চট্টগ্রামে কর্মরত সব সরকারি কর্মকর্তা শতভাগ আবাসন সুবিধা পান।’

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি স্থানীয় সংসদ সদস্য এম এ লতিফ জাম্বুরি পার্কের নাম ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পার্ক’ করার প্রস্তাব করেন। তিনি বলেন, ‘বাঙালি জাতির যত অর্জন বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে এসেছে। তাই আগামী নির্বাচনে সরকার পরিবর্তন নয়, দক্ষ ও যোগ্যতা বিবেচনায় শেখ হাসিনাকে যদি আপনারা বেছে না নেন তাহলে আগামী প্রজন্ম আপনাদের ক্ষমা করবে না।’

অনুষ্ঠানে গৃহায়ন গণপূর্ত অধিদপ্তরের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী মোসলেহ উদ্দিন আহমদ, চট্টগ্রাম জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এম এ সালাম, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান প্রমুখ বক্তব্য দেন।

 



মন্তব্য