kalerkantho


চট্টগ্রামে দুই দিনব্যাপী বই উৎসব

‘চতুর্দিকে ভাঙনের শব্দ শ্রদ্ধাবোধ কমে এসেছে’

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

১১ নভেম্বর, ২০১৭ ০০:০০



বরেণ্য কবি হেলাল হাফিজ বলেছেন, চতুর্দিকে ভাঙনের শব্দ, মানুষের মাঝে শ্রদ্ধাবোধ অনেক কমে এসেছে। একই সঙ্গে তিনি বলেন, কবিরা স্বপ্নের চেয়েও বড়।

সেই স্বপ্নকে জাগিয়ে দেওয়ার কাজ করে বই। বই স্বপ্নের দুয়ার খুলে দেয়। মনকে আলোকিত করে। জানার জগেক বিস্তৃত করে।

গতকাল শুক্রবার চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের ইঞ্জিনিয়ার আবদুল খালেক মিলনায়তনে দুই দিনব্যাপী বই উৎসবের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য হেলাল হাফিজ এ কথা বলেন। চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের উদ্যোগে এ বই উৎসবের আয়োজন করা হয়।

কবি হেলাল হাফিজ বলেন, ‘আমাদের বুদ্ধিজীবীরা সমাজের বাতিঘর হিসেবে পরিচিত। কিন্তু তাঁদের থেকে আমরা কী পাচ্ছি? বিভিন্ন সভা-সমাবেশ কিংবা টক শোতে তাঁদের বক্তব্যেও দলীয় মনোভাব দেখা যায়। উচ্চ মহলকে সন্তুষ্ট করার জন্য নিজের বিবেককেও ছোট করতে কার্পণ্য করেন না তাঁরা।

প্রেস ক্লাবের সিনিয়র সহসভাপতি কাজী আবুল মনসুরের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন ক্লাবের আজীবন দাতা সদস্য আহসানুল কবির। বক্তব্য দেন সভাপতি কলিম সরওয়ার, সাধারণ সম্পাদক শুকলাল দাশ। অনুভূতি প্রকাশ করে বক্তব্য দেন বই উৎসবে সেরা লেখক-সাংবাদিক পুরস্কারপ্রাপ্ত মো. শামসুল হক (গবেষণা সাহিত্য), আবুল কালাম বেলাল (শিশু সাহিত্য) এবং জাহেদ মোতালেব (কথাসাহিত্য)।

হেলাল হাফিজ বলেন, যখন অসহায় মানুষ আদালতের ন্যায়বিচার থেকে বঞ্চিত হয়, সন্ত্রাসীর হামলার শিকার হয়, শাসকগোষ্ঠীর রোষানলে পড়ে, বিভিন্ন পেশি শক্তির হাতে লাঞ্ছিত হয়, তখন শেষ ভরসাস্থল হিসেবে মানুষ সাংবাদিকের কাছে এগিয়ে আসে। এ জন্য সাংবাদিকদের অবশ্যই যেকোনো শক্তির ঊর্ধ্বে থেকে পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে হবে। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘আমি নিজেও জীবনের বেশ কয়েক বছর সাংবাদিকতা পেশার সঙ্গে যুক্ত ছিলাম। ’

গতকাল উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হলেও বই উৎসব শুরু হবে আজ শনিবার বিকেল সাড়ে ৩টায়। শেষ হবে আগামীকাল রবিবার।

উৎসব উপলক্ষে আজকের অনুষ্ঠানের শুরুতে থাকছে বোধন আবৃত্তি পরিষদের পরিবেশনা। বিকেল ৪টায় থাকবে আলোচনাসভা ও সংবর্ধনা অনুষ্ঠান। এতে প্রধান অতিথি থাকবেন প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয় চট্টগ্রামের উপাচার্য অধ্যাপক ড. অনুপম সেন। সংবর্ধিত লেখক হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বাংলা একাডেমি পুরস্কারপ্রাপ্ত কবি সাংবাদিক রাশেদ রউফ। বিকেল ৫টায় থাকছে ছড়া ও কবিতা পাঠ।

বই উৎসব সবার জন্য উন্মুক্ত। উৎসবে সব ধরনের বই ৩০ শতাংশ কমিশনে বিক্রি হবে বলে ক্লাব থেকে জানানো হয়।

গতকালের অনুষ্ঠানে বই উৎসব উপলক্ষে গত ৩ নভেম্বর অনুষ্ঠিত আবৃত্তি প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার তুলে দেন প্রধান অতিথি কবি হেলাল হাফিজ। প্রতিযোগিতায় ক গ্রুপ থেকে প্রথম ঐশিকা ভৌমিক, যুগ্মভাবে দ্বিতীয় হয়েছে মালিহা তুজ সাদিয়া ও সৌম্য চক্রবর্তী, তৃতীয় হয়েছে ইফতিখার সিনাত নওমী। খ গ্রুপে সানন্দা দাশ প্রথম, আসফি রায়হান দ্বিতীয় এবং সোহরা আমরিন তৃতীয় হয়েছে। গ গ্রুপে সামিহা সাবাহ প্রথম এবং আবরার হাসান দ্বিতীয় স্থান অর্জন করে।


মন্তব্য