kalerkantho


গানের পাখি নাচেও

গান, উপস্থাপনা ও ব্যাডমিন্টনে আগেই নিজের প্রতিভার    

২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৫ ০০:০০



গানের পাখি নাচেও

'মায়ের কড়া শাসনে ছোটবেলায় গানের সঙ্গে নাচের ক্লাসেও নিয়মিত যেতে হতো। কিন্তু নাচতে আমার ভয় লাগত। বাধ্য হয়েই মার কাছে গিয়ে পা ব্যথার অজুহাত দেখাতাম'- বলছিলেন লিজা। সম্প্রতি নিজের গাওয়া 'সুরাইয়া' শিরোনামের একটি গানের ভিডিওতে নৃত্যশিল্পীর ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়েছেন এই গায়িকা। ভিডিওটিতে তাঁর পারফরম্যান্স নজর কেড়েছে অনেকের। আজ-কাল যে দিকেই যাচ্ছেন সবারই একই ডায়ালগ শুনতে হচ্ছে- 'লিজা তোর নাচ কিন্তু জটিল হয়েছে। তুই যে এত ভালো নাচিস আগে তো জানতাম না!' সবার কথা শুনে হেসেই খুন 'ক্লোজআপ ওয়ান : তোমাকেই খুঁজছে বাংলাদেশ-২০০৮' প্রতিযোগিতার এই বিজয়িনী। নাচের অভিজ্ঞতা কেমন? বলেন, 'শুরুতে ভয় হচ্ছিল। পরে কণা আপু (সংগীতশিল্পী) সাহস জুগিয়েছেন, এমনকি নাচটি তোলার সময় তিনি সঙ্গে ছিলেন। পাঁচ দিন ধরে নাচটি তুলেছি। লাইট, ক্যামেরার সামনে প্রথম নাচ! তাই খুব টেনশনে ছিলাম। ভিডিওটি প্রকাশের পর ভালো রেসপন্স পাচ্ছি।' বিভিন্ন টিভি চ্যানেলের পাশাপাশি অনলাইনেও প্রকাশ করা হয়েছে ভিডিওটি। আসছে পহেলা বৈশাখে বাজারে আসবে লিজার দ্বিতীয় একক অ্যালবাম। নাম চূড়ান্ত না হওয়া সেই অ্যালবামে থাকবে গানটি। লিজার জন্য এই অ্যালবামের গান তৈরি করছেন নকীব খান, শফিক তুহিন, আরফিন রুমি, জুয়েল মোর্শেদ, বেলাল খান প্রমুখ। সেমি ক্লাসিক, রোমান্টিক, হিপহপ প্রভৃতি ঘরানার গান দিয়ে অ্যালবামটি সাজাচ্ছেন নরসিংদীর এই কন্যা।

২০১২ সালে প্রকাশ পায় লিজার প্রথম একক অ্যালবাম 'লিজা পার্ট-১'। প্রায় তিন বছর পর দ্বিতীয় একক নিয়ে হাজির হচ্ছেন আসছে বৈশাখে। তবে এ সময়ে কয়েকটি মিক্সড অ্যালবামে শোনা গেছে তাঁর কণ্ঠ।

চলচ্চিত্রের গানেও কদর আছে লিজার। এখন পর্যন্ত প্রায় ২০টি চলচ্চিত্রের গানে কণ্ঠ দিয়েছেন। মুক্তির মিছিলে থাকা 'আয়না সুন্দরী', 'ইনোসেন্ট লাভ', 'ছেলেটি আবোল তাবোল মেয়েটি পাগল পাগল', 'ভোলা যাবে না', 'মার ছক্কা' প্রভৃতি চলচ্চিত্রে রয়েছে তাঁর গান। সম্প্রতি কণ্ঠ দিয়েছেন 'মিশন আফ্রিকা' চলচ্চিত্রের একটি গানে। 'দুটি মন দুটি আশা', 'ট্রাফিক সিগনাল'সহ কয়েকটি ধারাবাহিক নাটকের টাইটেল গানও গেয়েছেন। স্টেজেও পার করছেন ব্যস্ত সময়। মার্চে যাচ্ছেন যুক্তরাষ্ট্রে। মে-তে সুইজারল্যান্ড, জার্মানি ও অস্ট্রেলিয়ায়। আগস্টে লন্ডনে। গানের পাশাপাশি উপস্থাপনায়ও নিয়মিত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে এমবিএর এই শিক্ষার্থী। বর্তমানে বৈশাখী টিভির 'দ্য মিউজিক ট্রেন', এশিয়ান টিভির 'শুধু ভালোবাসা', এসএ টিভির 'ইন সাইড টিউন' এবং জিটিভির 'ভালোবাসি গান' অনুষ্ঠানের উপস্থাপনা করছেন। উপস্থাপনার অভিজ্ঞতা কেমন? 'উপস্থাপনা করব কখনো ভাবিনি। দুই-একটি অনুষ্ঠান করার পর সেটা দর্শক-শ্রোতারা ভালোভাবে গ্রহণ করেন। চ্যানেল কর্তৃপক্ষও খুব করে চাইছিলেন যেন নিয়মিত করি, ব্যাস! এরপর একে একে অনেক অনুষ্ঠান হয়ে গেছে। মজার বিষয় হচ্ছে সবই গাননির্ভর। আমার তাই খুব একটা কষ্ট হচ্ছে না। বরং গানের খুঁটিনাটি অনেক বিষয় জানতে পারছি'_বলছিলেন লিজা। ব্যাডমিন্টন খেলোয়াড় হিসেবেও সুনাম রয়েছে তাঁর। ২০১৩ সালে জাতীয় ব্যাডমিন্টন প্রতিযোগিতায় (নারী) কোয়ার্টার ফাইনাল পর্যন্ত গিয়েছিলেন। পরের বছর অবশ্য অংশগ্রহণ করেননি। বলেন, 'এত কিছু করে ভোর ৭টায় ব্যাডমিন্টন কোর্টে যাওয়াটা খুব কঠিন ব্যাপার। আর নিয়মিত প্র্যাকটিস না করলে তো খেলাও ডাউন হয়ে যায়। আমি একজন আর কত্ত কী করব!'

 

 

 



মন্তব্য