kalerkantho

অবশেষে বিয়ে

রংবেরং ডেস্ক   

১৫ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



অবশেষে বিয়ে

কয়েক বছর ধরে কতই না জল্পনা ছিল তাঁদের বিয়ে নিয়ে। অনেক সময় তাঁদের সিনেমার চেয়েও বেশি কথা হয়েছে দুজনের সম্পর্ক নিয়ে। অবশেষে বলিউডের বহুল আলোচিত দুই তারকা দীপিকা পাড়ুকোন ও রণবীর সিংয়ের বিয়েটা হলো। ইতালির লেক কোমোতো এলাকার ‘ভিলা দেল বালবিয়েনেল্লো’ রিসোর্ট ছিল বিয়ের ভেন্যু। দুই পরিবারের সদস্যরা ছাড়া মাত্র ১০০ জন অতিথি ছিলেন আমন্ত্রিত। জানা গেছে, রণবীর-দীপিকা নিজেরা দাঁড়িয়ে অতিথিদের স্বাগত জানান। অনুষ্ঠানে বলিউড তারকাদের মধ্যে পাত্র-পাত্রীর ঘনিষ্ঠ শাহরুখ খান, ফারাহ খান ও সঞ্জয়লীলা বানশালির থাকার কথা। কারণ দেশ ছাড়ার আগে দীপিকা নিজে এঁদের সঙ্গে দেখা করে দাওয়াত করে যান। অনুষ্ঠানে ছবি তোলার ব্যাপারে কঠোর নিষেধাজ্ঞা ছিল, এ জন্য অতিথিদেরও মোবাইল ফোন নিয়ে প্রবেশ করতে দেওয়া হয়নি। দূর থেকে বিয়ের ছবি না তোলার জন্যও দীপিকা-রণবীরের পক্ষ থেকে আহ্বান জানানো হয়। তাঁদের হয়ে এক প্রতিনিধি ভেন্যুর বাইরে এসে জানান, সময় হলে তাঁরাই বিয়ের ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করবেন।

বুধবার আলোচিত এই জুটির বিয়ে হয় কোঙ্কনি প্রথায়। এর আগে ছিল ‘ফুল মুদ্দি’। ‘ফুল মুদ্দি’তে পাত্রীর বাবা পাত্রের মা-বাবাকে আমন্ত্রণ জানান। এরপর পাত্রীর বাবা পাত্রের হাতে একটি নারকেল দেন। তারপর আনুষ্ঠানিকভাবে পাত্রের পরিবারের সদস্যদের আমন্ত্রণ জানান। দুই পরিবারের সদস্যদের মধ্যে নারকেল ও কাঁচা হলুদও বিনিময় হয়। এর পরেই আংটি বদল করেন দীপিকা-রণবীর। আংটি বদল শেষে শুরু হয় সংগীত, যেখানে নাচেন পাত্র স্বয়ং। নিজের অভিনীত ‘গুণ্ডে’ ছবির হিট ‘তুনে মারি এন্ট্রিয়া’-এর তালে পারফর্ম করেন রণবীর। পরে একই সঙ্গে মঞ্চে পারফর্ম করেন দীপিকা-রণবীর দুজনই। পারফরম্যান্সের সবচেয়ে আকর্ষণীয় ক্ষণ ছিল রণবীর-দীপিকার চুমু খাওয়ার মুহূর্ত। তবে সেটার আগে ছিল সিনেমার মতোই নাটকীয়তা। অনুষ্ঠানের একপর্যায়ে হঠাৎ দীপিকার সামনে হাঁটু গেড়ে বসে তাঁকে চুমু খেতে বলেন রণবীর। মজা করে দীপিকা বলেন দুই হাতে মেহেদি থাকায় নিজে খাবার খেতে পারছেন না। রণবীর যদি তাঁকে খাইয়ে দেন তবেই তিনি চুমু খাবেন। মেহেদি অনুষ্ঠানের পর সেখানে পারফর্ম করেন শুভা মুগদল, হর্ষদীপ কৌর থেকে অনেকেই। শুভা মুগদলের ঠুমরি পারফরম্যান্সের সময় দীপিকাকে কাঁদতে দেখা যায়। বিয়ের একটি ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করেও পরে তা সরিয়ে নেন হর্ষদীপ। বিয়ের আসরে দীপিকা পরেছিলেন সব্যসাচী মুখার্জির ডিজাইন করা লাল লেহেঙ্গা আর রণবীর পরেছিলেন কাঞ্জিভরম শেরওয়ানি। এক অসমর্থিত সূত্রে জানা যায়, পুরো বিয়ের অনুষ্ঠানটির বীমা করিয়েছেন দীপিকা-রণবীর, যা বলিউডে প্রথম। বিয়ের ভেন্যু ‘ভিলা দেল বালবিয়েনেল্লো’ সাজানো হয়েছিল অসংখ্য গোলাপে। একটি সূত্র জানায়, শুধু গোলাপের পেছনেই ছয় লাখ রুপি খরচ করেছেন দুই তারকা। ফুল মদ্দি, সংগীত, মেহেদি সব অনুষ্ঠান শেষে শুরু হয় বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা। বাংলাদেশ সময় বুধবার বিকেল ৪টার দিকে বিয়ে সম্পন্ন হয় দীপিকা-রণবীরের।

আজ একই ভেন্যুতে সিন্ধি মতে বিয়ের অনুষ্ঠান হওয়ার কথা।



মন্তব্য