kalerkantho

চলচ্চিত্র

১০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



চলচ্চিত্র

নিঃস্বার্থ ভালোবাসা : অভিনয়ে অনন্ত, বর্ষা, রাজ্জাক। পরিচালক অনন্ত জলিল।

বিকেল ৩টা ১০ মিনিট, এটিএন বাংলা।

গল্পসূত্র : অনন্ত অঢেল টাকা-পয়সার মালিক। মডেল মেঘলার সঙ্গে তার প্রেম। গাড়ি-বাড়ি-ফ্ল্যাট সবই কিনে দেয় প্রেমিকাকে। এই সম্পর্ক চলাকালে আরেকটি ছেলের সঙ্গে প্রেমে জড়িয়ে পড়ে মেঘলা। এটা কিছুতেই মানতে পারে না অনন্ত। ভালোবাসার শক্তি দিয়ে মেঘলাকে ফিরিয়ে আনে নিজের জীবনে।

 

কাপুরুষ মহাপুরুষ : অভিনয়ে চারুপ্রকাশ ঘোষ, গীতালি রায়, সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়, মাধবী মুখোপ্যাধায়। পরিচালক সত্যজিৎ রায়।

দুপুর ১২টা, ডিডি বাংলা।

গল্পসূত্র : স্ত্রী বিয়োগের পর নামকরা উকিল গুরুপদ মিত্রের সংসারবৈরাগ্য দেখা দেয়। ট্রেনে দেখা পায় বিরিঞ্চিবাবার। নিজেকে মহাপুরুষ হিসেবে পরিচয় দেয় এই ভণ্ডবাবা। গুরুপদ ভক্ত হয়ে যায় তার। বাবাকে নিয়ে আসে নিজের বাড়িতে। অল্প সময়ের মধ্যে কলকাতা শহরে প্রচুর ভক্ত তৈরি হয়ে যায় এই বাবার। গুরুপদ বাবুর মেয়ে বুঁচকির পাণিপ্রার্থী সত্য এবং তার মেসের মালিক নিবারণ চেষ্টা করতে থাকে বাবা ও তার শিষ্য কেবলরামকে বাড়ি থেকে তাড়ানোর। শেষে ধরা পড়ে যায় বিরিঞ্চিবাবার জারিজুরি।

 

বাগবান : অভিনয়ে অমিভাত বচ্চন, হেমা মালিনী, সালমান খান, পরেশ রাওয়াল। পরিচালক রবি চোপড়া। দুপুর ১টা ২০ মিনিট, সনি ম্যাক্স।

গল্পসূত্র : রাজ মালহোত্রা সাবেক ব্যাংক কর্মকর্তা। চার ছেলে আর স্ত্রী পূজাকে নিয়ে সুখের সংসার। ছেলেরা সবাই যার যার কর্মক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠিত। রাজ ভেবেছিল বাকি জীবন স্ত্রীকে নিয়ে সুখেই দিন কাটাবে। কিন্তু ছেলেরা যখন জানতে পারে তাদের বাবার কাছে অর্থকড়ি তেমন নেই, তখন তারা বেঁকে বসে। ঠিক করে মা-বাবা আলাদাভাবে চার ছেলের কাছে পালাক্রমে থাকবে। ঠিক এই সময় মালহোত্রা দম্পতিকে উদ্ধার করতে এগিয়ে আসে তাদেরই পালক সন্তান অলোক।

 

গ্র্যাভিটি : অভিনয়ে সান্ড্রা বুলক, জর্জ ক্লুনি, এড হ্যারিস। পরিচালক আলফানসো কুয়ারন। রাত সাড়ে ৯টা, মুভিজ নাউ।

গল্পসূত্র : প্রথমবার মহাশূন্য মিশনে এসেছে মেডিক্যাল প্রকৌশলী ড. রায়ান স্টোন। সঙ্গে আছে এক অভিজ্ঞ নভোচারী ম্যাট কুয়ালস্কি। এটা তার শেষ মিশন। দুজনই মনে করেছিল, ভালোয় ভালোয় সম্পন্ন করবে এই মিশন। কিন্তু রুটিন এক স্পেসওয়াকের সময় ঘটে বিপত্তি। ধ্বংস হয়ে যায় স্পেসশাটল। যোগাযোগবিছিন্ন হয়ে যায় পৃথিবীর সঙ্গে। এখন কি তারা পারবে আবার পৃথিবীতে ফেরত যেতে?


মন্তব্য