kalerkantho


তানোর

ব্রিটিশ আমলের সেতু ঝুঁকিতে

তানোর (রাজশাহী) প্রতিনিধি   

৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



তানোর থেকে রাজশাহী যাওয়ার পথে পবা উপজেলার দুয়ারি মোড়ে ব্রিটিশ আমলের একটি সেতু রয়েছে। সেতুটি শুধু ইটের গাঁথুনির ওপর শত বছর ধরে দাঁড়িয়ে আছে। ভেতর থেকে ইট-খোয়া বেরিয়ে এসেছে। পিলারে শেওলা জমেছে। যেকোনো সময় ভেঙে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে। এর পরও এ সেতু দিয়ে ঝুঁকি নিয়ে ভারী যানবাহন চলাচল করছে।

পবা উপজেলা স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) সূত্রে জানা গেছে, দুয়ারি ও বাগসার বারো-নয় শাখা নদীর ওপরে এ সেতুটি ব্রিটিশ আমলে তৈরি করা হয়েছে। সেতুর দৈর্ঘ্য ১০০ মিটার, প্রস্থ ১২ ফুট। নদী থেকে এর উচ্চতা প্রায় ১৫০ ফুট।

স্থানীয়রা জানায়, রাজশাহী জেলা শহরের সঙ্গে তানোর উপজেলার যোগাযোগের প্রধান সড়ক এটি। এ সড়ক দিয়ে প্রতিদিন নিয়ামতপুর, নাচোল ও রহনপুরের হাজার হাজার মানুষ যাতায়াত করে। এ ছাড়া ইট, পাথর, বালু, ধান ও মাছবোঝাই ট্রাক চলাচল করছে। নির্দেশনা উপেক্ষা করে অতিরিক্ত ভারী যান চলাচল করলেও দেখার কেউ নেই। কর্তৃপক্ষ শুধু সাইনবোর্ড দিয়ে দায় সেরেছে।

সোমবার সকালে ধানবোঝাই ট্রাক নিয়ে রাজশাহী যাওয়ার পথে কথা হয় মনিরুল ইসলাম নামের এক ট্রাকচালকের সঙ্গে। তিনি জানান, প্রতিনিয়ত মাল বোঝাই করে এ সড়ক দিয়ে যান। কিন্তু দুয়ারি সেতুতে উঠলে আতঙ্ক দেখা দেয়। মনে হয় এটি ভেঙে পড়বে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, নদী থেকে অনেক উঁচুতে সেতুটি দাঁড়িয়ে আছে। সেতুর নিচে মাত্র একটি ইটের পিলার রয়েছে। পিলারের ইট খসে পড়ছে। পিলারের নিচে মাটি না থাকায় সেতুটি নড়বড়ে হয়ে পড়েছে। স্থানীয়রা এখানে নতুন সেতু নির্মাণের দাবি জানিয়েছে।

পবা উপজেলা এলজিইডি প্রকৌশলী আনোয়ার হোসেন বলেন, ‘আমরা এক যুগ আগে সেতুটি ঝুঁকিপূর্ণ বলে সাইনবোর্ড টাঙিয়ে দিয়েছি। এখানে আরেকটি নতুন সেতু করার জন্য মন্ত্রণালয়ে ইতিমধ্যে প্রস্তাবনা পাঠানো হয়েছে।’



মন্তব্য