kalerkantho


সিরাজগঞ্জে স্বামীর আগুনে অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূর মৃত্যু

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি   

৮ মার্চ, ২০১৮ ০০:০০



সিরাজগঞ্জের চৌহালী উপজেলার এনায়েতপুরে পারিবারিক কলহের জেরে কেরোসিন দিয়ে স্বামীর লাগানো আগুনে দগ্ধ হয়ে সোনিয়া খাতুন (২৪) নামের এক গৃহবধূ মারা গেছেন। বুধবার ভোরে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাঁর মৃত্যু হয়। এর আগে মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার এনায়েতপুর সিনিয়র ফাজিল মাদরাসার পাশের গলিতে শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দিয়ে পালিয়ে যান স্বামী জাহাঙ্গীর হোসেন। সোনিয়া উপজেলার রুপনাই গ্রামের আব্দুল খালেকের মেয়ে।

পুলিশ ও সোনিয়ার স্বজনরা জানায়, এনায়েতপুর থানার রুপনাই চড়কাদহ গ্রামের তাঁত শ্রমিক আব্দুল খালেকের মেয়ে সোনিয়াকে গোপালপুর বাজারসংলগ্ন আরেক তাঁত শ্রমিক জাহাঙ্গীর হোসেন পাঁচ বছর আগে বিয়ে করে। বিয়ের আগে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক থাকলেও বিয়ের পর থেকেই তাদের মধ্যে পারিবারিক কলহ চলছিল। এ নিয়ে কয়েক দফায় সালিসি বৈঠকও হয়েছে। হঠাৎ মঙ্গলবার দুপুরে জাহাঙ্গীর হোসেন তাঁর তিন মাসের অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে এনায়েতপুর সিনিয়র ফাজিল মাদরাসার পাশের গলিতে নিয়ে শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দিয়ে পালিয়ে যান। আগুনে ঝলসে যায় সোনিয়ার মুখমণ্ডলসহ শরীরের ৪০ শতাংশ। সোনিয়ার চিৎকার শুনে এলাকার লোকজন তাঁকে উদ্ধার করে।


মন্তব্য