kalerkantho


কেশবপুর চুনারুঘাট বদলগাছিতে তিন খুন

ফরিদপুর বালিয়াকান্দি গাংনী গোসাইরহাটে পাঁচ লাশ

প্রিয় দেশ ডেস্ক   

১ মার্চ, ২০১৮ ০০:০০



কেশবপুর চুনারুঘাট বদলগাছিতে তিন খুন

যশোরের কেশবপুরে ব্যবসায়ী ও হবিগঞ্জের চুনারুঘাটে বৃদ্ধকে কুপিয়ে এবং নওগাঁর বদলগাছিতে গৃহবধূকে শ্বাসরোধে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। ফরিদপুর শহরে নবজাতকের কার্টনবন্দি লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। একই জেলার চরভদ্রাসনে মিলেছে গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ। রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি, শরীয়তপুরের গোসাইরহাট ও মেহেরপুরের গাংনীতে স্কুলছাত্রসহ তিনজনের লাশ পাওয়া গেছে।

কেশবপুর (যশোর) : কেশবপুর উপজেলায় ব্যবসায়ী মামুনর রশিদকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল বুধবার সকালে সরফাবাদ গ্রামে কুচক্ষেত থেকে তাঁর লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য যশোর জেনারেল হাসপাতালে মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ। লাশটি মাটিতে পোঁতা ছিল। তবে ব্যবসায়ীর মোটরসাইকেল ও সঙ্গে থাকা টাকা পাওয়া যায়নি। এ থেকে পুলিশ ও পরিবারের ধারণা, দুর্বৃত্তরা তাঁকে কুপিয়ে হত্যা করে মোটরসাইকেল ও টাকা নিয়ে পালিয়ে গেছে। রশিদ হিজলডাঙ্গা গ্রামের সোহরাব মোড়লের ছেলে। স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন ধরে ট্রাকের ব্যবসা করছিলেন রশিদ। সম্প্রতি মাছের ঘের করার উদ্যোগ নেন। কিছুদিন ধরে এসংক্রান্ত কাজে কেশবপুর শহর ও মঙ্গলকোট বাজারে যাতায়াত করছিলেন। মঙ্গলবার সকালে ঘেরের জন্য টাকা সংগ্রহ করতে বাড়ি থেকে বের হয়েছিলেন তিনি। 

নওগাঁ : বদলগাছি উপজেলায় গৃহবধূ মনি বেগমকে শ্বাসরোধে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। গতকাল বুধবার সকালে উপজেলা সদরের মহিলা কলেজের পাশে পিনডিরা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত স্বামী ইসমাইল হোসেন পলাতক। এ ঘটনায় হত্যা মামলা হয়েছে। স্থানীয়রা জানায়, পরকীয়া প্রেমের সূত্র ধরে আট বছর আগে মনিকে বিয়ে করে ইসমাইল। গৃহবধূর বাবা পত্নীতলা উপজেলার কুন্দন সরদারপাড়া গ্রামের সাইদুর রহমান জানান, বেশ কিছুদিন আগে মায়ের কাছে থেকে ৩০ হাজার টাকা ধার নিয়ে স্বামীকে দেন মনি। সেই টাকা ফেরত দেওয়ার কথা বললে স্বামীর সঙ্গে তাঁর দ্বন্দ্ব শুরু হয়। মনিকে তাঁর স্বামী গলা টিপে হত্যা করেছে বলে সাইদুরের অভিযোগ।

শরীয়তপুর : গোসাইরহাট উপজেলার মৌলভীবাজারসংলগ্ন সিরাজ রাঢ়ির পুকুরপার থেকে ফার্নিচার ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল বুধকার সকালে উদ্ধার করা লাশটি শহীদ খানের। লাশের গলায় আঘাতের চিহ্ন আছে। পাশে ইয়াবা সেবনের আলামত পাওয়া গেছে। পুলিশের ধারণা, ব্যাবসায়ীকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। শহীদ পূর্ব লাকাচুয়া গ্রামের মকদুম আলী খানের (মৃত) ছেলে।

রাজবাড়ী : বালিয়াকান্দি উপজেলার ইলিশকোল গ্রাম থেকে স্কুলছাত্র শাওন সরকারের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল বুধবার সকালে লাশটি উদ্ধারের পর ময়নাতদন্তের জন্য রাজবাড়ী হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। শাওন ইলিশকোলের গণেশ সরকারের ছেলে। বালিয়াকান্দি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ে নবম শ্রেণিতে পড়ত সে। শাওনকে পড়াশোনার কথা বলেছিলেন বাবা। এ কারণে বাবার সঙ্গে অভিমান করে সে আত্মহত্যা করেছে বলে অভিযোগ।

হবিগঞ্জ : চুনারুঘাট উপজেলায় দুর্গম রেমা চা বাগান এলাকায় বৃদ্ধ বরদ মুণ্ডাকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে জামাতার বিরুদ্ধে। গতকাল বুধবার দুপুরে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হবিগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ। অভিযুক্ত কাশীরামকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। চুনারুঘাট থানার ওসি (তদন্ত) আলী আশরাফ জানান, বছরখানেক আগে রেমা চা বাগান এলাকার বরদ মুণ্ডার মেয়ে রামী মুণ্ডাকে বিয়ে করে একই এলাকার কাশীরাম। কিছুদিন পরই তাদের মধ্যে দাম্পত্য কলহ শুরু হয়। স্ত্রীর সঙ্গে কলহের জেরে গত মঙ্গলবার শ্বশুরকে দা দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে কাশীরাম। খবর পেয়ে গতকাল দুপুরে ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার ও কাশীরামকে গ্রেপ্তার করা হয়।

ফরিদপুর : জেলার আলাদা স্থান থেকে গত দুই দিনে নবজাতকসহ দুজনের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এর মধ্যে গতকাল বুধবার সকালে শহরের চরকমলাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনের বাড়ির সীমানাপ্রাচীরের ওপর রাখা কাগজের কার্টন থেকে উদ্ধার করা হয়েছে নবজাতকের লাশ। কোনো  ওয়ারিশ না পাওয়ায় দুপুরে আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলামের মাধ্যমে লাশটি শহরের আলীপুর কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে। অন্যদিকে চরভদ্রাসন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় গৃহবধূ লিমা আক্তারের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। লাশের ময়নাতদন্তের জন্য ফরিদপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়েছে। লিমা পাশের সদরপুর উপজেলার দক্ষিণ আলমনগর গ্রামের বারেক মৃধার দ্বিতীয় মেয়ে। মাত্র এক বছর আগে চরভদ্রাসনের হাজীগঞ্জের সালাম শেখের ছেলে রকিব শেখের সঙ্গে তাঁর বিয়ে হয়।

মেহেরপুর : গাংনী উপজেলা থেকে নরসুন্দর কৃষ্ণা বিশ্বাসের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল বুধবার সকালে জুগিন্দা গ্রামের বিজয় মণ্ডলের আমবাগান থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। কৃষ্ণা একই গ্রামের গোবিন্দা বিশ্বাসের (মৃত) ছেলে। স্ত্রী যমুনা বিশ্বাস বলেন, অভাব-অনটনের জন্য কয়েকটি এনজিও থেকে ঋণ নিয়েছিলেন। ঋণের টাকা পরিশোধের জন্য এনজিওগুলো বেশ কিছুদিন থেকে চাপ দিচ্ছিল। তাঁর স্বামী কৃষ্ণা এ নিয়ে চিন্তিত ছিলেন। মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে পান কেনার নাম করে বাড়ি থেকে বের হয়ে আর  ফেরেননি। রাত থেকে তাঁকে অনেক খোঁজাখুঁজি করা হচ্ছিল। গতকাল সকালে স্থানীয়রা কৃষ্ণার লাশ আমবাগানটিতে পড়ে থাকতে দেখে বাড়িতে খবর দেয়।


মন্তব্য