kalerkantho


১ম ক লা ম

ড্রেনে পড়ে মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক, গাজীপুর   

১২ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



সকাল ১০টায় পরীক্ষা ছিল। তাই একটু সকাল সকাল বাসা থেকে বের হয়েছিল সুমাইয়া আক্তার।

কিন্তু তার আর পরীক্ষা দেওয়া হয়নি। দুপুরে সে বাড়ি ফিরেছে লাশ হয়ে। গাজীপুর সিটি করপোরেশনের ভোগড়া বাইপাস এলাকায় ড্রেনে পড়ে তার মৃত্যু হয়। সুমাইয়া ভোগড়ার পেয়ারাবাগান এলাকার কুয়েতপ্রবাসী আবুল হোসেনের মেয়ে। তিন বোনের মধ্যে সে ছিল সবার বড়। গাজীপুর মহানগরের গাজীপুরা এলাকার তা’মিরুল মিল্লাত মাদরাসার সপ্তম শ্রেণিতে পড়ত সুমাইয়া। তার বাবা গত বুধবার ছুটিতে কুয়েত থেকে দেশে এসেছেন। স্থানায়ীরা জানায়, গতকাল সকালে সুমাইয়া পরীক্ষা দিতে বাসা থেকে বের হয়। ভোগড়া বাইপাস মোড়ে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে ড্রেনের ঢাকনার ওপর দাঁড়িয়ে বাসের জন্য অপেক্ষা করছিল সে। পাশের ড্রেনের ঢাকনা ছিল না। ঢাকাগামী একটি বাসের ধাক্কায় ওই ঢাকনা সরে গেলে পানিতে পড়ে যায় সুমাইয়া। বৃষ্টির পানিতে ড্রেনটি ভরা ছিল। এ কারণে সে তলিয়ে পানির স্রোতে মহাসড়কের নিচ দিয়ে প্রায় ১০০ ফুট দূরে গিয়ে আবর্জনায় আটকে যায়। পরে পুলিশ ও এলাকাবাসী উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক সুমাইয়াকে মৃত ঘোষণা করেন। জয়দেবপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) জাকির হোসেন জানান, বৃষ্টির পানিতে ড্রেনের ওই অংশ তলিয়ে ছিল। তা ছাড়া ড্রেনে ঢাকনা না থাকায় এ মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটেছে।


মন্তব্য