kalerkantho


বান্ধবীকে দিয়ে ফাঁদ, এখন নিজেরাই ধরা

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি   

১০ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



বান্ধবীকে দিয়ে প্রেমের অভিনয় করিয়ে পাওনাদারের কাছ থেকে টাকা উদ্ধার করতে গিয়ে বান্ধবীসহ আটজনই আটকা পড়েছে। বুধবার রাতে সিদ্ধিরগঞ্জের শিমরাইল মোড় এলাকা থেকে তাদের আটক করে পুলিশের হাতে সোপর্দ করে জনতা।

আটককৃতরা হলো সুমাইয়া আক্তার, মাহফুজ শাওন, জীবন, হাবিব, মিঠু, ইমরান, রবিউল ইসলাম ও সিএনজি অটোরিকশা চালক আতিয়ার হোসেন। তাদের ৫৪ ধারায় আটক দেখিয়ে আদালতে পাঠিয়েছে পুলিশ।  

সিদ্ধিরগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আবুল হোসেন জানান, এক পাওনাদার তাদের দীর্ঘদিন টাকা না দিয়ে টালবাহানা করায় ছয় বন্ধু পরিকল্পনা করে তাদের মেয়ে বন্ধু সুমাইয়া আক্তারকে প্রেমের অভিনয়ের জন্য ঠিক করে। কিন্তু ওই বান্ধবীকে দেওয়া ফোন নম্বর ভুল হওয়ায় সুমাইয়ার কল চলে যায় অচেনা সিএনজি অটোরিকশা চালক আতিয়ার হোসেনের মোবাইলে। আর এ নম্বরেই চলে কথোপকথন। তৈরি হয় প্রেমের সম্পর্ক। বুধবার রাতে সিদ্ধিরগঞ্জের শিমরাইল মোড় এলাকায় দেখা করতে এলে ছয় বন্ধু ও তাদের বান্ধবী সুমাইয়া মিলে আতিয়ারকে আটক করে। এ সময় সে চিত্কার-চেঁচামেচি করলে তাদের আটজনকেই আটক করে পুলিশের হাতে সোপর্দ করে জনতা। তবে সিএনজি অটোরিকশা চালক আতিয়ারের দাবি, তার সঙ্গে মোবাইলে প্রেমের অভিনয় করে তার কাছ থেকে টাকা-পয়সা ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে ওই সাতজন।


মন্তব্য