kalerkantho


সান্তাহারে জনসভা

প্রধানমন্ত্রীর পা ছুঁতে যাওয়া ফারহানা মুক্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া   

২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



বগুড়ার সান্তাহারে বক্তব্য শেষে মঞ্চ থেকে নামার সময় নিরাপত্তা বেষ্টনী ভেদ করে প্রধানমন্ত্রীর পা ধরার চেষ্টা করেন এক নারী। পরে প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তাকর্মীরা (এসএসএফ) তাঁকে আটক করে থানায় সোপর্দ করেন। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে রবিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে তাঁকে মুক্তি দেওয়া হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সান্তাহার স্টেডিয়ামে প্রধানমন্ত্রী বক্তব্য দিয়ে রবিবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে মঞ্চ থেকে নেমে আসেন। এ সময় হঠাৎ ফারহানা হায়দার মল্লিক (৩৫) নামের ওই নারী প্রধানমন্ত্রীর পা ধরার চেষ্টা করেন। নিরাপত্তাকর্মীরা দ্রুত তাঁকে আটক করেন। প্রধানমন্ত্রী সেখান থেকে হেলিপ্যাডে যাওয়ার জন্য গাড়িতে ওঠার পর ওই নারীকে পুলিশে সোপর্দ করা হয়।

বগুড়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আব্দুল জলিল জানান, তিনি নিজে ওই নারীকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছেন। তাঁর পরিবারের বিষয়েও খোঁজখবর নেওয়া হয়েছে। আসলে আবেগের বশে তিনি ওই কাজ করেছেন। পরে আর কখনো এমন কাজ করবেন না এমন মুচলেকা নিয়ে তাঁকে থানা থেকে মুক্তি দেওয়া হয়।

আদমদিঘী থানার ওসি শওকত কবীর জানান, ওই নারীকে আদমদিঘী থানায় রেখে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ফারহানা পুলিশকে জানান, তিনি ঢাকার ১৮ নম্বর ওয়ার্ডের আওয়ামী লীগকর্মী। তাঁর স্বামীর বাড়ি বগুড়ার দুপচাঁচিয়া উপজেলার সাহারপুকুর এলাকায়। স্বামী হায়দার মল্লিক ঢাকা ও দুপচাঁচিয়ায় থাকেন। বাবার বাড়ি রংপুরের পীরগঞ্জে। তিনি সাধারণ গ্যালারিতে ছিলেন।


মন্তব্য