kalerkantho


রাজাপুরে গভীর রাতে হামলা, আহত ৭

ছাত্রলীগ সভাপতিসহ পাঁচজন গ্রেপ্তার

ঝালকাঠি প্রতিনিধি   

২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



ঝালকাঠির রাজাপুরে গভীর রাতে এক বাড়িতে হামলার ঘটনায় উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতিসহ পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় ছয় নারীসহ সাতজন আহত হয়েছে।

আহতদের রাজাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। শনিবার রাত ৪টার দিকে রাজাপুর ডিগ্রি কলেজ এলাকায় ওই ঘটনা ঘটে।

রাজাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি সাহেরা বেগম অভিযোগ করেন, ‘শেষ রাতের দিকে ছাত্রলীগ সভাপতি রুবেল, তার পরিবারের লোকজনসহ ১০-১২ জন মুখোশধারী আমাদের বাড়িতে হামলা চালায়। তারা ঘরে ঢুকে রড ও লাঠিসোঁটা দিয়ে আমাদের মারধর করে। এ সময় আমাদের চিৎকার শুনে কেউ হয়তো থানায় ফোন করে। পরে পুলিশ এসে হামলাকারীদের মধ্যে পাঁচজনকে ধরে ফেলে। ’

রাজাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা আবুল খায়ের মাহামুদ রাসেল বলেন, আহতদের মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে জখম রয়েছে। তাঁদের চিকিৎসা চলছে।

রাজাপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) হারুন অর রশীদ জানান, মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে ভোর সাড়ে ৪টার দিকে ডিগ্রি কলেজ এলাকার ফারুক সিকদারের বাড়ি থেকে পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

রাজাপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক বাপ্পি মৃধা বলেন, এটি সম্পূর্ণ পারিবারিক ঘটনা। এ ঘটনার সঙ্গে রাজনৈতিক কোনো সম্পর্ক নেই।

এদিকে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় কয়েকজন বাসিন্দা অভিযোগ করেন, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আহসান হাবিব রুবেলের বাবা তোফাজ্জেল হোসেন রাজাপুর সদরের বেশ কয়েকটি জমিতে সাইনবোর্ড ঝুলিয়ে দখলে নিয়েছেন। সাইনবোর্ড ঝোলানোর পর ওই জমির মালিকের কাছে মোটা অঙ্কের টাকা দাবি করা হয়। টাকা না দিলে দখল করে রাখা হয়। লোকজন নিয়ে বাবা-ছেলে দীর্ঘদিন ধরে এ কাজ করে আসছেন।


মন্তব্য