kalerkantho


কাহালুতে বন্দুকযুদ্ধে দুই ডাকাত নিহত

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া   

৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



বগুড়ার কাহালুর পাঁচপীর মাজার এলাকায় বুধবার ভোরে পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে দুই ডাকাত নিহত হয়েছে। এ সময় দুই ডাকাতকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

কাহালু থানার ওসি নূরে আলম সিদ্দীকি জানান, নিহত দুই ডাকাতের মধ্যে দুলাল হোসেন (৩৫) দুপচাঁচিয়ার তালোড়া সাবলা গ্রামের মৃত আবদুস সাত্তারের ছেলে এবং ইব্রাহীম হোসেন (৪০) নন্দীগ্রাম উপজেলার থালতা মাঝগ্রামের মৃত বছির উদ্দিন আকন্দের ছেলে।

গুলিবিদ্ধ অবস্থায় গ্রেপ্তার হওয়া অন্য দুজন হলেন কাহালুর দেওগ্রামের হামেদ আলীর ছেলে মোজাম ফকির (৩৫) ও নন্দীগ্রামের পাঠান গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে ইয়াকুব আলী (৪০)।

ভোরে পাঁচপীর মাজার এলাকায় টহল পুলিশকে দেখে ডাকাতরা প্রথমে গুলি ছোড়ে। পুলিশ পাল্টা গুলি ছুড়লে বেশ কিছুক্ষণ গোলাগুলি হয়। পরে ঘটনাস্থলে গুলিবিদ্ধ দুজনের লাশ পাওয়া যায়। একই সময় ধাওয়া করে সহযোগী অন্য দুজনকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয় পুলিশ। গ্রেপ্তার হওয়া ডাকাতদের কাছে থেকে একটি বিদেশি পিস্তল ও পাঁচ রাউন্ড গুলিসহ বেশ কিছু দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ আরো জানায়, ডাকাতদলের সঙ্গে গোলাগুলির সময় আঘাতপ্রাপ্ত হয়েছেন কাহালু থানার এএসআই ফিরোজ ও কনেস্টেবল আব্দুল বারেক। তাঁরা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।

কাহালু থানার এসআই জাকির হোসেন জানান, নিহত ও গ্রেপ্তার হওয়া ডাকাতদের বিরুদ্ধে বগুড়ার বিভিন্ন থানায় একাধিক মামলা রয়েছে। সম্প্রতি ধলাহার গ্রামে তিন হিন্দু বাড়িতে ডাকাতির সঙ্গে তারা জড়িত ছিল। এর আগে গ্রেপ্তার হওয়া একই ডাকাতদলের সদস্য আনোয়ার আদালতে এ ব্যাপারে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়। আহত দুজনকে বর্তমানে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় আলাদা তিনটি মামলা হয়েছে।


মন্তব্য