kalerkantho

রবিবার। ৪ ডিসেম্বর ২০১৬। ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


হারাল বরগুনার নয়ন

হত্যার পর লাশ গুমের আশঙ্কা পরিবারের

বরগুনা প্রতিনিধি   

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



হারাল বরগুনার নয়ন

নিখোঁজ নয়ন

বরগুনা সদরের নয়াকাটা গ্রামের যুবক নয়ন নিখোঁজ রয়েছেন। তিন দিন ধরে তাঁর কোনো সন্ধান পাওয়া যাচ্ছে না।

প্রতিপক্ষরা তাঁকে হত্যার পর লাশ গুম করতে পারে বলে পরিবারের আশঙ্কা। এ ঘটনায় একজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

স্থানীয় ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, সোনাখালী গ্রামের আব্দুল জব্বার আড়তদারের মেয়ের সঙ্গে নয়নের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। গত সোমবার রাতে নয়ন গোপনে মেয়েটির সঙ্গে দেখা করতে তার বাড়িতে যায়। এ সময় মেয়েটির দুই ভাই জসীম ও বসির ওই যুবককে আটক করেন। পরে স্থানীয় দুই যুবক পান্না ও রুবেলের সহযোগিতায় তাঁরা নয়নকে বেদম মারধর করেন। একই সময় নয়নের ব্যবহৃত মোটরসাইকেলও পুড়িয়ে দেন তাঁরা।

এরপর থেকেই নিখোঁজ রয়েছেন নয়ন। এদিকে ঘটনার পর পরই দুই ছেলেসহ জব্বার ও পান্না পালিয়ে যায়। পরদিন মঙ্গলবার বিকেলে রুবেলকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এ ঘটনায় নয়নের বাবা পরিমল সরকার বাদী হয়ে ওই দিন রাতে জব্বার, তাঁর মেয়ে ও দুই ছেলে এবং পান্না ও রুবেলকে আসামি করে থানায় একটি অপহরণ মামলা করেন।

এদিকে নয়নকে মারধর ও তাঁর মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দেওয়ার কথা স্বীকার করে গতকাল বুধবার সকালে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন গ্রেপ্তার হওয়া রুবেল। এ ছাড়া মারধরের পর নয়ন পালিয়ে যায় বলে দাবি করেছেন তিনি। এসব তথ্য খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের ওসি আব্দুল্লাহ।

এ ব্যাপারে বরগুনা থানার ওসি রিয়াজ হোসেন বলেন, অভিযুক্ত পরিবারের প্রতি নজর রাখছে পুলিশ। রুবেলের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী নয়নকে যারা মারধর করেছে তাদের সবাইকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।


মন্তব্য