kalerkantho

শনিবার । ১০ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


বাসচাপায় স্কুল ছাত্রী নিহত

প্রতিবাদে টঙ্গীতে সড়ক অবরোধ বিক্ষোভ

নিজস্ব প্রতিবেদক, গাজীপুর ও টঙ্গী প্রতিনিধি   

৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



প্রতিবাদে টঙ্গীতে সড়ক অবরোধ বিক্ষোভ

গাজীপুরের টঙ্গীতে বাসচাপায় স্কুল ছাত্রী তাজনিহ আক্তার রাফা নিহত হওয়ার জেরে গতকাল সড়ক অবরোধ করে তার সহপাঠীরা। ছবি : কালের কণ্ঠ

সড়ক দুর্ঘটনায় স্কুল ছাত্রী নিহতের প্রতিবাদে এবং ফুট ওভারব্রিজ নির্মাণের দাবিতে গতকাল সোমবার গাজীপুরের টঙ্গীতে বিক্ষোভ করেছে তার সহপাঠীরা। এ সময় ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়ক অবরোধ করে তারা।

এতে সড়কের দুই পাশে যান চলাচল বন্ধ হয়ে গেলে তীব্র যানজট দেখা দেয়। ফলে শিল্পনগরীর কর্মজীবী মানুষ ও সাধারণ যাত্রীরা দুর্ভোগের মধ্যে পড়ে। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে কলেজগেট এলাকায় ফুট ওভারব্রিজ নির্মাণের আশ্বাস দিয়ে এবং তাত্ক্ষণিক স্পিডবেকার স্থাপন করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

এর আগে গত রবিবার সন্ধ্যায় কোচিং শেষে মায়ের সঙ্গে বাসায় ফেরার পথে টঙ্গীর কলেজগেট এলাকায় সড়ক দুর্ঘটনায় স্কুল ছাত্রী তাজনিহ আক্তার রাফা (১৩) নিহত হয়। এ সময় আহত হন তার মা। রাফা পটুয়াখালী জেলা সদরের রড়বিঘা এলাকার ফিরোজ মিয়ার মেয়ে। সে টঙ্গীর দত্তপাড়া ফাতেমা খানম রোডে তার নানার বাসায় থেকে লেখাপড়া করত। এক ভাই এক বোনের মধ্যে রাফা ছিল বড়।

এলাকাবাসী জানায়, টঙ্গী সফিউদ্দিন সরকার একাডেমি অ্যান্ড কলেজের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী রাফা রবিবার সন্ধ্যায় কোচিং শেষে তার মায়ের সঙ্গে কলেজগেট এলাকায় পৌঁছলে বলাকা পরিবহনের একটি বাস তাদের চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়। এতে মা-মেয়ে দুজনই গুরুতর আহত হয়। এ সময় তাদের হাসপাতালে নেওয়া হলে ডাক্তার রাফাকে মৃত ঘোষণা এবং তার মাকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করেন। স্কুল ছাত্রী রাফার মৃত্যুর খবর রাতের মধ্যে ছড়িয়ে পড়লে শিক্ষার্থীরা গতকাল সকাল সাড়ে ৮টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত চার ঘণ্টা মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখায়।

শিক্ষার্থীরা জানায়, কয়েক বছরে এই স্থানে বহু শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। দ্রুত ফুট ওভারব্রিজ নির্মাণ না করা হলে বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে।

টঙ্গী থানার (ওসি) মো. ফিরোজ তালুকদার জানান, সড়ক দুর্ঘটনায় সহপাঠী নিহতের প্রতিবাদে শিক্ষার্থীরা ওই মহাসড়কে অবস্থান নেয়। এতে যানবাহন চলাচল সাময়িক বিঘ্নিত হয়। পরে ফুট ওভারব্রিজ স্থাপনের আশ্বাস দিয়ে এবং সাময়িকভাবে স্পিডবেকার বসিয়ে শিক্ষার্থীদের মহাসড়ক থেকে সরিয়ে দিলে যানবাহন চলাচল শুরু হয়।


মন্তব্য