kalerkantho

শনিবার । ১০ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


সড়কে ঝরল দুই প্রাণ

আহত ৩৮

গোপালগঞ্জ, ভূঞাপুর (টাঙ্গাইল) ও সাতক্ষীরা প্রতিনিধি   

৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



গোপালগঞ্জে নসিমন ও মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে মিঠু মোল্লা ওরফে বাবু (২১) নামের এক কলেজ ছাত্র নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া আহত হয়েছেন আরো তিনজন।

শুক্রবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে গোপালগঞ্জ-টেকেরহাট সড়কের গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার কংশুর এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত মিঠু মোল্লা গোপালগঞ্জ সদরের উলপুর গ্রামের সোহরাব মোল্লার ছেলে এবং উলপুর এম  এইচ  খান ডিগ্রি কলেজের বিএ দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র।

গোপালগঞ্জের বৌলতলী পুলিশ ফাঁড়ির উপপরিদর্শক ফরিদুল ইসলাম জানিয়েছেন, আহতদের ফরিদপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল ও গোপালগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

সদর থানার ওসি মো. সেলিম রেজা বলেন, লাশের ময়নাতদন্ত শেষে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

এদিকে টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার ধলাটেংগরে শুক্রবার সকাল পৌনে ৭টার দিকে বাস-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে ট্রাকের হেলপার নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন অন্য ২০ জন। তাঁদের টাঙ্গাইল মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্ব থানার ওসি মো. আছাবুর রহমান জানান, ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা নীলফামারীর ডুমুরিয়াগামী উল্লাস পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাসের সঙ্গে উত্তরবঙ্গ থেকে ঢাকাগামী ভূট্টাবাহী একটি ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই ট্রাকের হেলপার মো. বিপ্লব হোসেন (৩৫) নিহত হন। তাঁর বাড়ি মধুপুর উপজেলার গুপদিয়া গ্রামে।

এ ছাড়া সাতক্ষীরা-কালীগঞ্জ সড়কের দেবহাটার পারুলিয়া গরুর হাট নামক স্থানে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সঙ্গে ধাক্কা লেগে উল্টে গিয়ে একটি বাসের ১৫ যাত্রী আহত হয়েছেন। তাঁদের আশঙ্কাজনক অবস্থায় সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল ও সখীপুর স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। আহতরা হলেন, দেবহাটা উপজেলার বেজোরাটি গ্রামের আবু বক্কারের ছেলে লিয়ন (৯), শ্যামনগর উপজেলার নুরনগর গ্রামের খগেন্দ্র নাথ সরকারের ছেলে দিলীপ সরকার (৩৫), খুলনার দৌলতপুরের সাইজুদ্দীনের ছেলে আবুল কালাম (৪৫), ডুমুরিয়ার দুলাল দাসের ছেলে ভোলা নাথ দাস (৩২), সাতক্ষীরা জেলা সদরের লাবসার মোশারফের ছেলে হাসান (৩০), একই উপজেলার আগরদাড়ির মহিউদ্দীনের ছেলে লিটন (২৫), কালীগঞ্জের মৌতলার আহম্মদ আলীর ছেলে বারেক (৪০), একই গ্রামের নেসার আলীর ছেলে শাহজাহান, আশাশুনির শ্রীউলা গ্রামের আজহারুলের ছেলে শামিম (২৫), কালীগঞ্জের বাঁশতলা গ্রামের শঙ্কর দত্ত (৩৫), একই গ্রামের নুরজাহান (৪৫), শ্যামনগরের নুরনগর গ্রামের নিলয় মণ্ডল (৫), সুব্রত মণ্ডল ও এবাদুলের স্ত্রী নুরজাহান।


মন্তব্য