kalerkantho

25th march banner

শিশু মুক্তিযোদ্ধা

গাইবান্ধা প্রতিনিধি   

২৭ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



গতকাল শনিবার সকাল। বিশ্রাম করছিলেন বয়স্করা। হঠাৎ দিঘির পার ধরে ক্রলিং করতে করতে এগিয়ে এলো গেরিলা মুক্তিযোদ্ধারা। মুহূর্তেই শুরু হলো গোলাগুলি। প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে ছুড়ে মারা হলো গ্রেনেড। শত্রুদের নিশ্চিত পরাজয় জেনে একপর্যায়ে আনন্দ-উল্লাসে ফেটে পড়ল মুক্তিযোদ্ধারা। ততক্ষণে ‘জয় বাংলা’ স্লোগানে মুখরিত হয়ে উঠেছে পুরো এলাকা। এ দৃশ্য গাইবান্ধা পৌর পার্কের। গাইবান্ধা স্টেডিয়ামে শারীরিক কসরত সেরে কিছুক্ষণ আগে এই পার্কে এসেছে আটজন শিশু-কিশোর। ওদের নাম আলিফ মিয়া, মেহেদী হাসান, মনির হোসেন, শামিউল ইসলাম, সাফিন মিয়া, হাসান মিয়া, রেজাউন্নবী রাজু, আসাদুজ্জামান নয়ন বলে জানা গেল। সপ্তম থেকে নবম শ্রেণিতে লেখাপড়া করছে ওরা। বাড়ি সদর উপজেলার মুর্শিদের বাজার গ্রামে। এ সময় নবম শ্রেণির মেহেদী জানাল, ওরা টিফিনের টাকা বাঁচিয়ে অটোরিকশায় চড়ে এখানে এসেছে মুক্তিযোদ্ধা সেজে। লক্ষ্য একটাই, মুক্তিযুদ্ধকে নতুন প্রজন্মের সামনে তুলে ধরা আর মুক্তিযোদ্ধাদের সেই বীরত্বগাথা মানুষকে মনে করিয়ে দেওয়া। আর ওদের এই ব্যতিক্রমী আয়োজনে পার্কে উপস্থিতরা এক অর্থে অভিভূত।


মন্তব্য