kalerkantho

বুধবার । ১৮ জানুয়ারি ২০১৭ । ৫ মাঘ ১৪২৩। ১৯ রবিউস সানি ১৪৩৮।

১৪৪ ধারা

রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) প্রতিনিধি   

২৩ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের একই মন্দিরে গৌর পূর্ণিমা উৎসব পালনকে কেন্দ্র করে দুই গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে উপজেলার ভিংরাব এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। স্থানীয় প্রশাসন রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্কায় সেখানে ১৪৪ ধারা জারি করেছে। প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ভিংরাব এলাকায় চার একর ২২ শতাংশ জমির ওপর একটি মন্দির রয়েছে। দুটি গ্রুপ মন্দিরটি নিজেদের বলে দাবি করে আসছে। একটি গ্রুপের নেতৃত্বে রয়েছেন প্রাণকুমার দাস। আর হংসকৃষ্ণ দাস ব্রহ্মচারী রয়েছেন অন্যটির নেতৃত্বে। দীর্ঘদিন ধরে দুটি গ্রুপই মন্দিরের বিভিন্ন ধর্মীয় অনুষ্ঠান আলাদাভাবে করে আসছে। বুধবারও (আজ) তারা আলাদাভাবে একই মন্দিরে গৌর পূর্ণিমা উৎসবের আয়োজন করবে। গ্রুপ দুটির লোকজন গতকাল দুপুরে মন্দিরে আলাদাভাবে প্যান্ডেল নির্মাণসহ উৎসবের আয়োজন করতে গেলে তাদের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। এ সময় একদল অন্য দলকে কাজ করতে বাধা দেয়। একপর্যায়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করে। পরে বিকেলে দুই গ্রুপকে একত্রে উৎসব পালন করতে বলা হলেও এতে কেউ রাজি না হওয়ায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ফারহানা ইসলাম সেখানে ১৪৪ ধারা জারি করেন। এ বিষয়ে রূপগঞ্জ থানার ওসি মাহমুদুল ইসলাম বলেন, ঘটনাস্থল অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করে কেউ কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটালে তাদের ছাড় দেওয়া হবে না।


মন্তব্য