শিক্ষিকাকে কিল ঘুষি ও লাথি মেরে-331882 | প্রিয় দেশ | কালের কণ্ঠ | kalerkantho

kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৭ সেপ্টেম্বর ২০১৬। ১২ আশ্বিন ১৪২৩ । ২৪ জিলহজ ১৪৩৭


শিক্ষিকাকে কিল ঘুষি ও লাথি মেরে স্কুলছাড়া

হাওরাঞ্চল প্রতিনিধি   

৪ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার নোয়াগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক দিপালী রানী দাসসহ দুই শিক্ষিকাকে মারধর করে বের করে দেওয়া হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে বিদ্যালয় ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি ও তাঁর লোকজন তাঁদের হেনস্তা ও মারধর করেন।

বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে লাঞ্ছিত ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা দিপালী রানী দাস প্রতিকার চেয়ে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ করেছেন।

অভিযোগে জানা গেছে, গতকাল সকাল সাড়ে ১০টার দিকে কমিটির সভাপতি সর্বানন্দ তালুকদারের নেতৃত্বে ৮-১০ জন লোক হঠাৎ করে বিদ্যালয়ে ঢোকেন। তাঁরা সহকারী শিক্ষিকা মনি রানী তালুকদারকে অকথ্য ভাষায় গালাগাল করতে থাকেন। তাঁকে জোরপূর্বক বিদ্যালয় থেকে চুল ধরে টেনে-হিঁচড়ে বের করে দেওয়ার চেষ্টা করেন। এ সময় ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা দিপালী রানী দাস বাধা দিলে সভাপতি সর্বানন্দ তালুকদার ও তাঁর লোকজন আরো ক্ষিপ্ত হয়ে দুজনকে চুল ধরে টেনে-হিঁচড়ে, কিল, ঘুষি ও লাথি মেরে বিদ্যালয় থেকে বের করে দেন। অভিযুক্তরা বিদ্যালয়ের ছাত্র ও শিক্ষক হাজিরা রেজিস্টার খাতা ছিনিয়ে নেন।

অভিযুক্ত সভাপতি সর্বানন্দ তালুকদারের মুঠোফোন বন্ধ থাকায় তাঁর বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

মন্তব্য