kalerkantho

বিমানবন্দরে অস্ত্রসহ আটক আওয়ামী লীগ নেতা

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৩ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বিমানবন্দরে অস্ত্রসহ আটক আওয়ামী লীগ নেতা

ঘোষণা ছাড়াই অস্ত্র বহনের অভিযোগে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে গ্রেপ্তার হয়েছেন সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের নেতা এস এম মজিবুর রহমান। গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে বিমানবন্দরের অভ্যন্তরীণ টার্মিনালে স্ক্যান ও নিরাপত্তা তল্লাশির সময় পিস্তল ও ৩৫ রাউন্ড গুলি নিয়ে ধরা পড়েন তিনি। এ সময় শাহজালালের এভিয়েশন সিকিউরিটি ফোর্স (এভসেক) তাঁকে আটক করে। পরে তাঁকে থানায় সোপর্দ করা হয়।

এভসেকের পরিচালক নূরে আলম সিদ্দিকী কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘বিমানবন্দরের ডমেস্টিক টার্মিনালে ঘোষণা ছাড়া অস্ত্র নিয়ে প্রবেশকালে ধরা পড়ায় এস এম মজিবুর রহমানকে পুলিশে সোপর্দ করা হয়। তিনি নভোএয়ারের সন্ধ্যা ৭টার ফ্লাইটে যশোর যাচ্ছিলেন। তিনি সাতক্ষীরা আওয়ামী লীগের নেতা বলে নিজেকে পরিচয় দিয়েছেন।’

বিমানবন্দর সূত্র জানায়, এস এম মজিবুর রহমানের বাড়ি সাতক্ষীরা জেলার কলারোয়া থানার নাকিলা গ্রামে। তিনি সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের কৃষিবিষয়ক সম্পাদক।

এর আগে গত ১৭ মার্চ বিমানবন্দরে শটগান ও গুলিসহ প্রবেশের অভিযোগে এইচ এম নুরুল ইসলাম নামে এক যাত্রীকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি প্রবাসী পল্লী গ্রুপের চেয়ারম্যানের দেহরক্ষী।  এর আগে ১১ মার্চ ঘোষণা ছাড়াই অস্ত্র নিয়ে শাহজালালে প্রবেশের অভিযোগে যশোরের চৌগাছা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ফুলসর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মেহেদী মাসুদ চৌধুরীকে আটক করা হয়েছিল।

প্রসঙ্গত, চট্টগ্রামে পলাশ আহমেদের বিমান ছিনতাইচেষ্টার ঘটনায় খেলনা পিস্তলের তদন্ত শেষ না হতেই ৫ মার্চ লাইসেন্স করা পিস্তল নিয়ে চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন হযরত শাহজালাল বিমানবন্দরের স্ক্যানিং মেশিন পার হওয়ার পর বিমানবন্দরের নিরাপত্তা নিয়ে সমালোচনা শুরু হয়। পরে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ এ বিষয়ে কঠোর অবস্থানে যাওয়ার সিদ্ধান্ত  নেয়।

মন্তব্য