kalerkantho


প্রথম দিন ২৫ জন মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন

প্রধান সংগঠনগুলোর কেউ তোলেনি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি   

২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০



প্রথম দিন ২৫ জন মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্রসংসদ (ডাকসু) ও হল সংসদ নির্বাচনের মনোনয়নপত্র বিতরণ শুরু হয়েছে গতকাল মঙ্গলবার। প্রথম দিন মনোনয়নপত্র তোলেনি প্রধান ছাত্রসংগঠনগুলোর কোনো নেতাকর্মী। তবে কয়েকজন স্বতন্ত্র প্রার্থী মনোনয়নপত্র নিয়েছেন, তাও সংখ্যায় খুব কম। প্রথম দিন বিভিন্ন হল সংসদ নির্বাচনে ২৫ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র উত্তোলন করেছেন বলে জানা গেছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ক্ষমতাসীন দলের ছাত্রসংগঠন ছাত্রলীগ প্যানেল চূড়ান্ত করতে পারেনি। দলীয় প্রধান শেখ হাসিনা জার্মানি সফর শেষে দেশে ফিরলেই প্যানেল চূড়ান্ত করার কথা রয়েছে সংগঠনটির।

অন্যদিকে হলের বাইরে ভোটকেন্দ্র স্থাপনসহ সাত দফা দাবিতে অনড় রয়েছে জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল। এখন পর্যন্ত প্রশাসন কোনো দাবিই না মানায় মনোনয়নপত্র নেওয়ার বিষয়ে সিদ্ধান্ত হয়নি বলে এনই মধ্যে গণমাধ্যকে জানিয়েছেন সংগঠনটির কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক আকরামুল হাসান। আগামী ২২ ফেব্রুয়ারি আনুষ্ঠানিকভাবে মনোনয়নপত্র নেবেন বলে জানিয়েছেন বাম ছাত্রসংগঠনগুলোর মোর্চা ‘প্রগতিশীল ছাত্রজোট’ ও ‘সাম্রাজ্যবাদবিরোধী ছাত্র ঐক্যে’র নেতারা।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, মনোনয়নপত্র বিতরণের প্রথম দিনে বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৮টি হলের মধ্যে ১০টি হলের প্রায় ২৫ জন শিক্ষার্থী ডাকসু ও হল সংসদে নির্বাচনে অংশ নিতে মনোনয়নপত্র সংগহ করেছেন। এর মধ্যে সলিমুল্লাহ মুসলিম হলে দুজন, মুহসীন হলে পাঁচজন, বিজয় একাত্তর হলে একজন, সুফিয়া কামাল হলে একজন, জিয়া হলে পাঁচজন, জহুরুল হক হলে পাঁচজন, সূর্য সেন হলে দুজন, বঙ্গবন্ধু হলে একজন, শামসুন নাহার হলে দুজন ও অমর একুশে হলে একজন মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন।

মনোনয়নপত্র সংগ্রহকারীদের মধ্যে সলিমুল্লাহ মুসলিম হলের প্রথম মনোনয়ন সংগ্রহকারী হলেন হলটির আবাসিক শিক্ষার্থী রিয়াজ উদ্দিন সোহেল। তিনি হল সংসদে নির্বাচন করবেন। পরবর্তী সময়ে তাঁকে একজন প্রস্তাবক ও পাঁচজন সমর্থকের সুপারিশ নিয়ে জমা দিতে বলা হয়েছে।

এ বিষয়ে ডাকসুর চিফ রিটার্নিং অফিসার অধ্যাপক এস এম মাহফুজুর রহমান কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘ডাকসু ও হল সংসদের মনোনয়নপত্র বিতরণ শুরু হয়েছে। প্রথম দিনেই কতজন মনোনয়নপত্র নিয়েছে সেই হিসাব এখন পর্যন্ত আমাদের কাছে আসেনি। তবে প্রতি তিন দিন পর পর হল প্রশাসনকে জানাতে বলা হয়েছে।’

 



মন্তব্য