kalerkantho


কুকুর নিয়ে বিপদে নাভারণ পুলিশ

ঝিকরগাছা (যশোর) প্রতিনিধি   

১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



কুকুর নিয়ে বিপদে নাভারণ পুলিশ

পাচারকালে উদ্ধার হওয়া কুকুরশাবক বড় হচ্ছে যশোরের ঝিকরগাছার নাভারণ হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়িতে। আর ওই কুকুরশাবক নিয়ে বিড়ম্বনায় পড়েছে পুলিশ। প্রতিদিন ওই কুকুরশাবকের খাওয়া-দাওয়া খরচ আর পরিচর্যায় পুলিশ রীতিমতো বিরক্ত হচ্ছে।

৪০ দিন আগে নাভারণ হাইওয়ে পুলিশ যশোর-বেনাপোল মহাসড়কে ঢাকাগামী এসপি গোল্ডেন লাইনের একটি যাত্রীবাহী বাসে তল্লাশি চালিয়ে বাক্সের ভেতর থেকে তিনটি ভারতীয় জাতের কুকুরশাবক উদ্ধার করে। সে সময় ১০ দিন বয়সী ওই কুকুরশাবকের কোনো মালিক পাওয়া যায়নি। সেই থেকে কুকরগুলো নাভারণ হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়িতে লালন করা হচ্ছে। কিছুদিন পর একটি শাবক মারা গেলেও বাকি দুটি এখন বড় হচ্ছে।

নাভারণ হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (এসআই) পলিটন মিয়া বলেন, ‘কুকুর শাবক উদ্ধারের পর বিষয়টি আমি এসপিকে জানাই। তিনি আবার ডিআইজিকে জানিয়েছেন। শেষমেশ এসপি আমাকে কুকুরশাবকগুলো লালন করতে বলেন। কিন্তু প্রতিদিন ওদের মাংস রান্না করে ভাতের সঙ্গে খেতে দিতে হয়। অন্যকিছু খায় না। ৩০০ টাকার মাংস কিনলে দুই দিনেই শেষ। মাসে দুটি করে ইনজেকশনও দেওয়া লাগে। গোসল করাতে হয়। এখন এ জন্তু নিয়ে বড় বিপদে আছি।’



মন্তব্য