kalerkantho


মুচি জসিমের সাম্রাজ্যে দ্বিতীয় দিনের অভিযান

কালিয়াকৈর (গাজীপুর) প্রতিনিধি   

১০ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



বন বিভাগের জমিতে অবৈধভাবে গড়ে তোলা মুচি জসিমের স্থাপনা উচ্ছেদে গতকাল রবিবার দ্বিতীয় দিনের মতো অভিযান চলেছে। সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত  বন বিভাগ, উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসন যৌথ অভিযান চালিয়ে দেড় শতাধিক ঘর উচ্ছেদ করে। এতে প্রায় তিন একর জমি জবরদখল মুক্ত হয়েছে। যার আনুমানিক মূল্য ৩০ কোটি টাকা বলে বন বিভাগ মনে করছে।

সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষগুলোর সূত্রে জানা যায়, ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের পাশে গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার চান্দরা পল্লী বিদ্যুৎ জোড়াপাম্প এলাকায় প্রায় ১০ একর বনের জমি জবরদখল করে নেয় জসিম উদ্দিন ইকবাল ওরফে মুচি জসিম ও তার লোকজন। বনের জমিতে অবৈধভাবে ঘরবাড়ি ও দোকানপাট নির্মাণ করে চক্রটি। জায়গার নাম দেওয়া হয় নতুনপাড়া। বন বিভাগ বারবার চেষ্টা করেও ওই জমি দখলমুক্ত করতে ব্যর্থ হয়। জসিম নিহত হওয়ার পর প্রশাসন ওই জমি উদ্ধারের পদক্ষেপ নেয়। শনিবার দুপুরে দুটি ভেকু, একটি বোলডোজার ও ৭০ জন বনপ্রহরী এবং ২০০ শ্রমিক ও প্রশাসনের কর্মকর্তাদের তত্ত্বাবধানে উচ্ছেদ অভিযান শুরু হয়। অভিযান চলে গতকালও।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন গাজীপুর জেলা প্রশাসক ড. দেওয়ান মো. হুমায়ুন কবির, এএসপি শাহিদুল ইসলাম, সহকারী বন সংরক্ষক এনামুল হক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম, সহকারী কমিশনার (ভূমি) নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শাহ মোহাম্মদ শামসুজ্জোহা, কালিয়াকৈর থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি রফিকুল ইসলাম প্রমুখ।

 



মন্তব্য