kalerkantho


আখাউড়ায় তথ্য উপদেষ্টা

সুসম্পর্ক সৃষ্টির অন্যতম মাধ্যম হলো গণমাধ্যম

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি   

২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবহান চৌধুরী বলেছেন, ‘সুসম্পর্ক সৃষ্টির অন্যতম মাধ্যম হলো গণমাধ্যম। বাংলাদেশ ও ভারতের সম্পর্ক উন্নয়নে গণমাধ্যম ভূমিকা রাখতে পারে।’ গতকাল শনিবার সকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া স্থলবন্দরে তিনি এ সব কথা বলেন।

‘ভারত-বাংলাদেশের সম্পর্ক সুদৃঢ়করণে সংবাদমাধ্যমের ভূমিকা’ শীর্ষক সেমিনারে যোগ দিতে ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের রাজধানী আগরতলায় যাওয়ার জন্য ইকবাল সোবহান আখাউড়া স্থলবন্দর হয়ে গন্তব্যস্থলের দিকে রওনা হন। আগরতলা প্রেস ক্লাব আয়োজিত আজ রবিবারের এ সেমিনার উদ্বোধন করবেন ত্রিপুরা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব। রাতে রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে বাংলাদেশের প্রতিনিধিদলকে সংবর্ধনা দেওয়া হবে। এ ছাড়া তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবহান চৌধুরীকে ‘ভারত বন্ধু’ সম্মাননা দেওয়া হবে।

ওই সেমিনারে যোগ দিতে ইকবাল সোবহান বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর আতিউর রহমান, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের মহাসচিব সাবান মাহমুদসহ সাত সদস্যের একটি দল নিয়ে গতকাল রওনা হয়েছেন। আখাউড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ শামছুজ্জামান, আখাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মোশারফ হোসেন তরফদার, আখাউড়া প্রেস ক্লাবের সভাপতি মো. মানিক মিয়া, যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক আব্দুল মমিন বাবুল প্রমুখ এ সময় তাঁদের স্বাগত জানান।

এ সময় তথ্য উপদেষ্টা বলেন, ‘বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তাঁর সরকার মুক্ত গণমাধ্যমে বিশ্বাস করে। মুক্ত গণমাধ্যমের বিষয়ে তাঁদের রাজনৈতিক প্রতিশ্রুতিও আছে। সেই হিসেবে তিনি একজন গণবান্ধব নেত্রী। গণমাধ্যমে যাঁরা কর্মরত সাংবাদিক আছেন, তাঁদের কল্যাণের জন্য তিনি নানা পদক্ষেপ ইতিমধ্যেই গ্রহণ করেছেন। গণমাধ্যম উন্মুক্ত করার জন্য তিনিই প্রথম ইলেকট্রিক মিডিয়াকে ব্যক্তি মালিকানায় খুলে দিয়েছেন। ইলেকট্রনিক মিডিয়ার যে আকাশ উন্মোচিত হয়েছে, সেটি কিন্তু তিনিই সৃষ্টি করেছেন।’



মন্তব্য