kalerkantho


১৪ দলের অভিমত

নির্বাচন সামনে রেখে ষড়যন্ত্রে যুক্তফ্রন্ট

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে সাবেক রাষ্ট্রপতি ডা. এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরী ও আইনবিদ ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বাধীন রাজনৈতিক জোট ‘যুক্তফ্রন্ট’ নানা ষড়যন্ত্র করছে বলে মনে করছেন ১৪ দলের নেতারা। তাঁদের মতে, ‘জুডিশিয়াল ক্যু’ ঘটাতে ব্যর্থ হয়ে এখন জাতীয় নির্বাচনে দেশি-বিদেশি চক্রান্তকারীদের সাহায্য নিয়ে সরকারকে বেকায়দায় ফেলার চেষ্টা করছেন যুক্তফ্রন্টের নেতারা। তাঁরা গতকাল সকালে ১৪ দলের এক বৈঠকে এমন মত দেন। ধানমণ্ডির আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়।

বৈঠকে ১৪ দলের নেতারা চক্রান্ত মোকাবেলায় নির্বাচন পর্যন্ত ক্ষমতাসীনদের কঠোর সতর্কতা অবলম্বন করার পরামর্শ দেন। ষড়যন্ত্র মোকাবেলায় সারা দেশে ১৪ দলের নেতাকর্মীদের সতর্ক করার কর্মসূচিও গ্রহণ করা হয়েছে। ১৮ সেপ্টেম্বর থেকে দেশের বিভিন্ন স্থানে সভা-সমাবেশ করবে ১৪ দল।

বৈঠকে উপস্থিত ১৪ দলের একাধিক নেতা জানান, আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মোহাম্মদ নাসিম বৈঠকে ড. কামাল হোসেন ও বদরুদ্দোজা চৌধুরীদের সমালোচনার মধ্যে দিয়ে আলোচনার সূত্রপাত ঘটান। নাসিম বলেন, ‘আগামী নির্বাচন ষড়যন্ত্র মোকাবেলার নির্বাচন। আমাদেরকে আগামী নির্বাচনে বহু ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করতে হবে। ড. কামাল হোসেনদের ভূমিকা রহস্যজনক। নির্বাচন সামনে রেখে একটা অশুভ চক্রান্ত শুরু হয়েছে। ফলে আমাদেরকে ষড়যন্ত্র মোকাবেলার প্রস্তুতি নিতে হবে। নির্বাচন করে সরকার গঠন করতে না পারলে কোনো লাভ নেই।’

সাম্যবাদী দলের সাধারণ সম্পাদক দিলীপ বড়ুয়া বলেন, ‘বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি জটিলতার যাচ্ছে। ড. কামাল ষড়যন্ত্রের নায়ক। বদরুদ্দোজা চৌধুরী ও জাফরুল্লাহ এর সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন। আমাদের সতর্কতার সঙ্গে পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে হবে।’

জাসদের সাধারণ সম্পাদক শিরিন আখতার বলেন, ‘বিএনপি-জামায়াতসহ যারাই চক্রান্ত করুক কাউকে ছাড় দেওয়া যাবে না। কঠোরতার সঙ্গে ষড়যন্ত্রকারীদের মোকাবেলা করতে হবে।’

 



মন্তব্য