kalerkantho


গৃহবধূর শরীরে আগুন দিয়ে হত্যাচেষ্টা

মাদকাসক্ত স্বামী আটক

নোয়াখালী প্রতিনিধি   

৫ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলায় এক গৃহবধূর শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন দিয়ে হত্যাচেষ্টা চালিয়েছে তাঁর স্বামী। তাঁর নাম মোহছেনা বেগম (৩১)। গত বুধবার রাত ২টার দিকে বসুরহাট পৌরসভার ৫ নম্বর ওয়ার্ড কলেজ গেট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। ওই গৃহবধূকে গুরুতর অবস্থায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তাঁর শরীরের ৫০ শতাংশ পুড়ে গেছে বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন।

এদিকে স্বামী জামাল উদ্দিনকে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয়রা। জামাল মাদাকাসক্ত ছিল। গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছিল।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, স্বামী জামাল মাদকাসক্ত হয়ে গৃহবধূ মোহছেনাকে প্রায়ই মারধর করত। এর মধ্যে গত বুধবার রাতে স্ত্রীকে মারধর শুরু করে। একপর্যায়ে শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়। এ সময় মোহছেনার চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে তাঁকে উদ্ধার করে। এরপর প্রথমে তাঁকে কোম্পানীগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। অন্যদিকে স্বামী জামাল উদ্দিনকে ঘটনাস্থল থেকে আটক করে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে স্থানীয়রা।

কোম্পানীগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসকরা জানান, গৃহবধূ মোহছেনার শরীরের প্রায় ৫০ শতাংশ পুড়ে গেছে। উন্নত চিকিৎসার জন্য রাতেই তাঁকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে স্থানান্তর করা হয়েছে।



মন্তব্য