kalerkantho


ফেসবুকের কাছে আলাদা ডেস্ক চাইবে বাংলাদেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৭ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক কর্তৃপক্ষের কাছে বাংলাদেশসংক্রান্ত আলাদা একটি ডেস্ক চালুর দাবি জানাবে সরকার। বিভিন্ন মামলার তদন্তাধীন বিষয়ে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ যাতে তাত্ক্ষণিক সাড়া দেয়, সেই প্রস্তাবও দেওয়া হবে।

গতকাল বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম এসব জানিয়েছেন।

সচিবালয়ে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে প্রতিমন্ত্রী জানান, আগামী ৩০ মার্চ সিঙ্গাপুরে ফেসবুক কর্তৃপক্ষের সঙ্গে অনুষ্ঠেয় সভায় এসব প্রস্তাব তোলা হবে।

এর আগে মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, বিটিআরসিসহ সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের নিয়ে আন্ত মন্ত্রণালয় বৈঠক হয়। সেখানে নির্ধারিত হয় এসব প্রস্তাবের কথা। প্রতিমন্ত্রী সাংবাদিকদের জানান, মৌলবাদ ও জঙ্গিবাদ উত্থানের একটি অন্যতম কারণ হলো সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম। অনলাইনেই জঙ্গিবাদের বিস্তার ঘটছে। এসব বিষয়ও আলোচনায় আসবে। ভেরিফিকেশনের যে নীতি আছে, তা যেন কঠোরভাবে বাস্তবায়ন ও পর্যবেক্ষণ করা হয় সে প্রস্তাবও তোলা হবে।

সাম্প্রতিক বছরগুলোতে ফেসবুক কর্তৃপক্ষের কাছে অভিযোগ করে ইতিবাচক সাড়া পাওয়া গেছে।

২০১৪ ও ২০১৫ সালে ৬৪টি অভিযোগ করা হয়েছিল ফেসবুকের কাছে। এর মধ্যে ২৬.৪৭ শতাংশ সাড়া পাওয়া যায়। এরপর ২০১৫ ও ২০১৬ সালে এটা আরো বেড়েছে। এ সময় ২০৩টি অভিযোগ করা হয়। এর মধ্যে ১১৪টি প্রস্তাবই গৃহীত হয়। চলতি বছরের মার্চে ৪৬টি অভিযোগ করে সাড়া মিলেছে ৭৯ শতাংশের।

অভিযোগগুলো কী ধরনের ছিল—এমন প্রশ্নের জবাবে তারানা হালিম জানান, নারীর প্রতি সহিংসতা ও ধর্মীয় উসকানির অভিযোগ ছিল বেশি। এর পরই ছিল জঙ্গিবাদ।

ফেসবুক যদি সরকারের আহ্বানে সাড়া না দেয়, তাহলে কি ফেসবুক বন্ধ করে দেওয়া হবে—এমন প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘সাড়া না দিলে আমরা ফেসবুক বন্ধ করব না। আমাদের বিশ্বাস দ্বিপক্ষীয় আলোচনার মাধ্যমে সব সমস্যার সমাধান সম্ভব। ’

 


মন্তব্য