kalerkantho


টেকনাফে আনসার ক্যাম্পে হামলার হোতা গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিবেদক, কক্সবাজার ও টেকনাফ প্রতিনিধি   

১ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলায় নয়াপাড়ায় রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরের আনসার ক্যাম্পের কমান্ডার হত্যা ও অস্ত্র লুটের ঘটনার হোতা মিয়ানমারের রোহিঙ্গা নাগরিক নুরুল আলমকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে উখিয়ার কুতুপালং রোহিঙ্গা শিবির থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

র‌্যাব-৭-এর কক্সবাজার ক্যাম্পের কম্পানি কমান্ডার লেফটেন্যান্ট কমান্ডার আশেকুর রহমান রাতে কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে দুর্ধর্ষ এই রোহিঙ্গাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। নুরুল আলম টেকনাফের আনসার ক্যাম্পের কমান্ডার হত্যা ও অস্ত্র লুটের প্রধান অভিযুক্ত। ’

কুতুপালং শিবিরের রোহিঙ্গারা জানায়, গতকাল বিকেল থেকে কুতুপালং অনিবন্ধিত রোহিঙ্গা শিবিরের পূর্বাংশে অভিযান শুরু করেন র‌্যাব সদস্যরা। তাঁরা ক্যাম্পটির ওই অংশ ঘিরে ফেলেন। এরপর নিবন্ধিত ও অনিবন্ধিত শিবিরে অভিযান চালিয়ে নুরুল আলমকে গ্রেপ্তার করা হয়। রাত ৯টার দিকে এ প্রতিবেদন লেখার সময় অভিযান চলছিল।

র‌্যাব কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, গ্রেপ্তার করা নুরুল আলমের অস্ত্র ভাণ্ডারের সন্ধান চালানো হচ্ছে।

জানা গেছে, দুর্ধর্ষ রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী নুরুল আলম আনসার ক্যাম্পের হামলার পর ভারত পালিয়ে গিয়েছিল। সেখান থেকে ফিরে আসার খবর পেয়েই র‌্যাব সদস্যরা অভিযান চালান।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ১২ মে রাতে রোহিঙ্গা সশস্ত্র জঙ্গিগোষ্ঠী টেকনাফের নয়াপাড়া রোহিঙ্গা শিবিরের দায়িত্বে নিয়োজিত আনসার ক্যাম্পে হামলা চালায়। তাদের গুলিতে নিহত হন আনসার কমান্ডার আলী হোসেন।


মন্তব্য