kalerkantho


ফেনীতে মাদরাসা ছাত্রীর চোখে চুন নিক্ষেপ করেছে বখাটেরা

ফেনী প্রতিনিধি   

২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



ফেনীতে এক মাদরাসা ছাত্রীর চোখে চুনের পানি নিক্ষেপ করেছে বখাটেরা। গতকাল বুধবার দুপুরে সোনাগাজীর কাশ্মীরবাজার সড়কে এ ঘটনা ঘটে। প্রেমের প্রস্তাবে সাড়া না দেওয়ায় চোখ নষ্ট করে দিতে এ ঘটনা ঘটিয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। আক্রান্ত শিক্ষার্থী নুসরাত জাহান রাফিকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পুলিশ বখাটেদের গ্রেপ্তার করতে পারেনি।

সোনাগাজী থানার ওসি হুমায়ূন কবির বলেন, ঘটনাস্থল থেকে আয়শা আক্তার নামের একজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। বখাটেদের শনাক্ত ও গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। এ ব্যাপারে মামলার বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন।

স্বজনরা জানায়, নুসরাত জাহান রাফি সোনাগাজী খাতিজাতুল কোবরা মহিলা মাদরাসা থেকে এবার দাখিল পরীক্ষা দিচ্ছে। উত্তর চরচান্দিয়া গ্রামে তাদের বাড়ি। বাবার নাম মুছা মানিক।

বুধবার দুপুর ২টায় পরীক্ষা শেষে বাড়ি ফেরার পথে দুই-তিনজন ছেলে কাশ্মীরবাজার সড়কের স্বর্ণকার ছিদ্দিকের বাড়ির কাছে রাফির পথরোধ করে। কিছু বুঝে ওঠার আগেই দুই চোখ লক্ষ্য করে চুনের পানি নিক্ষেপ করে তারা। এ অবস্থায় যন্ত্রণায় রাফি চিৎকার করতে থাকলে বখাটেরা পালিয়ে যায়। তাকে উদ্ধার করে সোনাগাজী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। পরে অবস্থার অবনতি ঘটলে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

সোনাগাজীর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মিনহাজুর রহমান বলেন, ‘আহত শিক্ষার্থীর সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। তার চিকিৎসার খোঁজখবর নিচ্ছি। এ ব্যাপারে আইনানুগ কঠোর পদক্ষেপ নেওয়া হবে। ’

শিক্ষার্থীর চিকিৎসা নিয়ে ব্যস্ত থাকায় পরিবার সদস্যরা গতকাল রাত পর্যন্ত থানায় এজাহার দাখিল করেননি। তবে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে আলামত হিসেবে চুনের প্যাকেট উদ্ধার  করেছে। তবে স্থানীয়রা বখাটেদের বিস্তারিত পরিচয় জানাতে পারেনি।


মন্তব্য