kalerkantho


গাড়ি ভাঙচুরের সংবাদ প্রকাশের জের

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ আগুন দিল কালের কণ্ঠে

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল   

২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ আগুন দিল কালের কণ্ঠে

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগের কর্মীরা কালের কণ্ঠ পত্রিকা পুড়িয়েছে। গতকাল সোমবার দুপুরে ক্যাম্পাসে ‘সাধারণ শিক্ষার্থীদের ব্যানারে’ ছাত্রলীগের ২০-২৫ জন কর্মী পত্রিকাটির কয়েকটি কপিতে অগ্নিসংযোগ করে।

রবিবার কালের কণ্ঠ’র দ্বিতীয় পৃষ্ঠায় ‘বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়; ছয় মাসে ৫১ গাড়ি ভেঙেছে শিক্ষার্থীরা’ শীর্ষক সংবাদের প্রতিবাদে তারা পত্রিকায় অগ্নিসংযোগ করে।

এর আগে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা ক্যাম্পাসের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের করে। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকে এসে কুশপুত্তলিকা দাহ করা হয়। তবে কার কুশপুত্তলিকা দাহ করা হয়েছে তা ছাত্রলীগ নিশ্চিত করেনি।

কর্মসূচি পালনের পর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ফেসবুক গ্রুপ ‘বিএস স্পেস’-এ একটি পোস্টে অভিযোগ করা হয়, পরিবহন মালিক সমিতির পক্ষ নিয়ে সাংবাদিক শিক্ষার্থীদের নিয়ে মিথ্যা তথ্য দিয়ে সংবাদ পরিবেশন করেছেন। তাই শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাসে কালের কণ্ঠ অবাঞ্ছিত ঘোষণা করেছে। সেই প্রতিবাদের অংশ হিসেবে তারা কালের কণ্ঠ পত্রিকায় অগ্নিসংযোগ এবং একটি কুশপুত্তলিকা দাহ করেছে। ভবিষ্যতে তারা কঠোর কর্মসূচি গ্রহণ করবে। কর্মসূচিতে ছিলেন গাজী মুহিত, আরিফ জোবায়ের, হাওলাদার রাকিব, মহসীন রহমান, জামান কবির, জহিরুল ইসলাম প্রমুখ।

বরিশাল-পটুয়াখালী মিনিবাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক আজিজুর রহমান শাহীন বলেন, ‘ছয় মাসে শ্রমিকদের সঙ্গে শিক্ষার্থীদের অন্তত ২০ বার ভুল বোঝাবুঝি হয়েছে। অন্তত ১৩ বারে সমিতির ২১টি বাস শিক্ষার্থীরা ভাঙচুর করেছে, যা গণমাধ্যমে এসেছে। ওই ঘটনায় আমরা তিনবার সাধারণ ডায়েরি করেছি। তবে বিশ্ববিদ্যালয় ও প্রশাসনের হস্তক্ষেপে তা তুলে নিয়েছি। এবার যদি সমাধান না হয়; তবে মামলা করব। ’ তিনি আরো বলেন, ‘আমরা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের কাছে প্রস্তাব দিয়েছি, যদি শিক্ষার্থীদের শাস্তির ব্যবস্থা করার নিশ্চয়তা দেন তবেই বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সঙ্গে সমঝোতায় বসব। ’


মন্তব্য