kalerkantho


সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচি

মুক্তিযোদ্ধা ভাতা ও পেনশন বাদ দেওয়ার সুপারিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



মুক্তিযোদ্ধা ভাতা ও সরকারি চাকরিজীবীদের পেনশন সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচি থেকে বাদ দেওয়াসহ সাত দফা সুপারিশ করেছে খাদ্য অধিকার বাংলাদেশ। গতকাল বৃহস্পতিবার সিরডাপ মিলনায়তনে ‘সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনী কর্মসূচির উত্তরণ ও খাদ্য অধিকার’ শীর্ষক সেমিনারে এ সুপারিশ করা হয়।

খাদ্য অধিকার বাংলাদেশের চেয়ারম্যান ড. কাজী খলীকুজ্জমান আহমদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মহসিন আলী। সেমিনারে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন অর্থনীতিবিদ ড. এম এম আকাশ, অক্সফাম বাংলাদেশের কান্ট্রি ডিরেক্টর স্নেহাল সোনেজি, ওয়ার্ল্ডভিশনের প্রধান উপদেষ্টা স্টিফেন কে হালদার প্রমুখ। সেমিনারে প্রধান অতিথি ছিলেন সমাজকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমদ।

সেমিনারে আলোচকরা বলেন, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির আওতায় দারিদ্র্য দূর করা ও প্রান্তিক মানুষদের জীবনের সুরক্ষা দেওয়া হয়। এ কর্মসূচির আওতায় মুক্তিযোদ্ধাদের যে সম্মানী দেওয়া হয় তাতে মুক্তিযোদ্ধাদের অসম্মানিত করা হয়। কর্মসূচির ভাতার পরিমাণ বড় অঙ্কে দেখানোর জন্য মুক্তিযোদ্ধা সম্মানী ভাতা এখানে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। আগামী বাজেটে এ কর্মসূচি থেকে মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানী ও সরকারি কর্মচারীদের পেনশন বাদ দেওয়া উচিত। আগামী অর্থবছরের মধ্যে উপকারভোগীদের ডাটাবেইস তৈরি শেষ করা, উপকারভোগীদের স্মার্টকার্ড চালু, প্রস্তাবিত এমআইএস নিশ্চিত করা, উপকারভোগী বৃদ্ধি করা, এসডিজি বাস্তবায়নের সময় কমিয়ে আনা এবং খাদ্য অধিকার নিশ্চিত করতে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নিতে সেমিনারে সুপারিশ করা হয়।


মন্তব্য