kalerkantho


চট্টগ্রাম ও কক্সবাজারে কাদের

পরাজয়ের আশঙ্কায় ইসিকে বিতর্কিত করছে বিএনপির

নির্বাচনে ঝাঁপিয়ে পড়তে কর্মীদের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার   

১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনের মতো জাতীয় নির্বাচনেও ভরাডুবির আশঙ্কায় বিএনপি নির্বাচন কমিশনকে বিতর্কিত করার চেষ্টা করছে। আসলে বিএনপি আশঙ্কা করছে, নারায়ণগঞ্জের নির্বাচনের মতো আগামী সংসদ নির্বাচনেও তাদের ভরাডুবি হবে। তিনি আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের ভুলভ্রান্তি সংশোধন করে দেড় বছরের মধ্যে আগামী নির্বাচনের প্রস্তুতির নির্দেশ দেন।

গতকাল শনিবার দুপুরে চট্টগ্রামের পটিয়া ও কক্সবাজারে স্থানীয় আওয়ামী লীগ আয়োজিত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের পটিয়ার ইন্দ্রপুলে বাইপাস সড়ক নির্মাণের স্থান পরিদর্শন উপলক্ষে সমাবেশের আয়োজন করা হয়। কক্সবাজারে জেলা আওয়ামী লীগের তৃণমূলের প্রতিনিধি সমাবেশে বক্তব্য দেন ওবায়দুল কাদের। এ ছাড়া আরো কয়েকটি পথসভায় বক্তব্য দেন তিনি।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘বিএনপি পুরনো নালিশের দল। তারা পথ হারিয়ে দিশাহারা। তাদের ৫৯৬ জনের কেন্দ্রীয় কমিটি। জাম্বু সাইজের এ কমিটি নিয়ে বিএনপি সাহস থাকলে মাঠে নামুক।

মিছিল-মিটিং করে দেখাক। ’ আওয়ামী লীগ নেতাদের উদ্দেশে তিনি বলেন, দুঃসময়ের কর্মীদের কোণঠাসা করবেন না। যেখানে কমিটি নেই, সেখানে কমিটি করুন।

পটিয়া পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যাপক হারুনুর রশিদের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এ কে এম এনামুল হক শামীম, স্থানীয় সংসদ সদস্য সামশুল হক চৌধুরী ও ওয়াসিকা আয়শা খান, দলের কেন্দ্রীয় উপপ্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন, উপদপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া প্রমুখ।

কক্সবাজারের বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল আমিন স্টেডিয়ামে দলের প্রতিনিধি সমাবেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘সময় একদম হাতে নেই। মাত্র দেড়টি বছর হাতে আছে আমাদের। এই দেড় বছরের মধ্যেই ভুলভ্রান্তি সংশোধনের মাধ্যমে শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করে নির্বাচনে ঝাঁপিয়ে পড়তে হবে। ’

সমাবেশে বিশেষ অতিথি দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবউল আলম হানিফ বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী দুর্নীতিকে প্রশ্রয় দেন না। তথাকথিত নোবেল বিজয়ীরা মিথ্যা ষড়যন্ত্র করে পদ্মা সেতু বন্ধের ষড়যন্ত্র করেছিলেন। কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর দৃঢ় সাহসে পদ্মা সেতু আজ স্বপ্ন নয়, বাস্তবতা। ’

কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্য্যাডভোকেট সিরাজুল মোস্তফার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে কেন্দ্রীয় নেতারা ছাড়া আরো বক্তব্য দেন জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোস্তাক আহমদ চৌধুরী, এমপি আবদুর রহমান বদি প্রমুখ।


মন্তব্য