kalerkantho


সাংবাদিক শিমুল হত্যার বিচার দাবি

প্রিয় দেশ ডেস্ক   

৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে সমকাল পত্রিকার উপজেলা প্রতিনিধি আব্দুল হাকিম শিমুল হত্যার বিচার দাবিতে দ্বিতীয় দিনের মতো গতকাল রবিবারও দেশজুড়ে বিভিন্ন কর্মসূচি পালিত হয়েছে। বিস্তারিত নিজস্ব প্রতিবেদক ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবরে :

শাবিপ্রবি : কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগার ভবনের সামনে শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয় প্রেস ক্লাব আয়োজিত মানববন্ধনে মুখে কালো কাপড় বেঁধে অংশ নেন সাংবাদিকরা।

শেষে মিছিল নিয়ে ক্যাম্পাসের প্রধান প্রধান সড়ক ঘুরে একই স্থানে এসে সমাবেশে মিলিত হন তাঁরা। এ সময় বক্তারা বলেন, গণমাধ্যমকর্মীদের ওপর হামলায় জড়িতদের কঠোর শাস্তির আওতায় আনতে হবে। তা না হলে দেশে গণতন্ত্র শুধুমাত্র কাগজে-কলমেই থেকে যাবে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন আসাদুজ্জামান নয়ন, হেলাল উদ্দিন, আব্দুল্লাহ আল মনসুরসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতারা।

মুন্সীগঞ্জ : সিরাজদিখানে গতকাল উপজেলা পরিষদের সামনে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ সময় বক্তারা শিমুলের হত্যাকারী সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর পৌরসভার মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হালিমুল হক মিরুকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড দিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানান। ক্রাইমভিশনের সম্পাদক মোহাম্মদ মোক্তার হোসেন বলেন, “আমরা নিজেদের জীবন বাজি রেখে সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে নিজেরাই সংবাদের শিরোনাম হব, তা মেনে নেওয়া যায় না। ‘সন্ত্রাসী’ মিরুকে দল থেকে বহিষ্কার করে ফাঁসিতে মৃত্যুদণ্ড নিশ্চিত না করা পর্যন্ত আমাদের কর্মসূচি চলবে। ”

নারায়ণগঞ্জ : প্রেস ক্লাবের সামনে মানববন্ধন চলাকালে জেলার সাংবাদিকসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ শিমুলের খুনিকে গ্রেপ্তার না করায় তীব্র ক্ষোভ দেখায়।

এ সময় বক্তব্য দেন মাহাবুবুর রহমান মাসুম, শরীফউদ্দিন সবুজ, ওবায়েদউল্লাহ, কমল খান, নজরুল ইসলাম বাবুল, তানভীর হোসেন, সরফুদ্দিন প্রভাত, হাবিবুর রহমান শ্যামল, এনামুল হক সিদ্দিকী, নিখিল দাস, হাফিজুল ইসলাম, এ টি এম কামাল, মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ, এম কবীর ইউ চৌধুরী, ধীমান সাহা জুয়েল, মো. জাহিদ, মোজাম্মেল হক লিটন প্রমুখ।

কেরানীগঞ্জ (ঢাকা) : কেরানীগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সভাপতি আব্দুল গনির সভাপতিত্বে গতকাল সকালে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে বক্তব্য দেন প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মো. সফিক চৌধুরী, সাবেক সভাপতি সালাহ উদ্দিন মিয়া ও দেলোয়ার হোসেন, সাধারণ সম্পাদক আবু জাফর, সাবেক সাধারণ সম্পাদক আলতাফ হোসেন মিন্টু, ইকবাল হোসেন রতন, জেড এ জিন্নাহ, জহুরুল হক জহির প্রমুখ। অবিলম্বে খুনিদের গ্রেপ্তার করে শাস্তির দাবি জানান তাঁরা।  

ফরিদপুর : হত্যাকারীদের অবিলম্বে গ্রেপ্তার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়ে বক্তারা বলেন, যথাযথ যাচাই-বাছাই না করে যাকে-তাকে যখন-তখন আগ্নেয়াস্ত্রের লাইসেন্স দেওয়ার বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে ভেবে দেখার সময় হয়েছে। গতকাল সকালে শহরের মুজিব সড়কে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে এ দাবি জানান বক্তারা। তাঁরা গণহারে আগ্নেয়াস্ত্রের লাইসেন্স না দেওয়ার জন্য সরকারের কাছে জোর দাবি জানান। মানববন্ধনে বক্তব্য দেন ইমতিয়াজ হাসান রুবেল, জগদীশ চন্দ্র ঘোষ, আব্দুল মতিন ফকির, পান্না বালা প্রমুখ।  

জয়পুরহাট : শহরের কেন্দ্রীয় মসজিদ এলাকার প্রধান সড়কে গতকাল সকালে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে বক্তব্য দেন মোস্তাকিম ফাররোখ, রতন কুমার খাঁ, আসাদুল ইসলাম, তপন কুমার খাঁ, শাহজাহান সিরাজ মিঠু, আলমগীর চৌধুরী প্রমুখ। কর্মসূচিতে জেলার বিভিন্ন রাজনৈতিক ও সামাজিক সংগঠনের নেতারা সংহতি জানান।

খাগড়াছড়ি : মানববন্ধনে বক্তব্য দেন বোধিসত্ত দেওয়ান, জীতেন বড়ুয়া, নুরুল আজম, প্রদীপ চৌধুরী, দীলিপ চৌধুরী, আবু দাউদ, চিংমেপ্রু মারমা, কানন আচার্য, লালসা চাকমা, জাহাঙ্গীর আলম রাজু প্রমুখ। কর্মসূচি থেকে খাগড়াছড়ি পৌরসভার মেয়র রফিকুল আলমের সাংবাদিক নির্যাতনের ঘটনার বিচার ও প্রতিবাদ করতে গিয়ে প্রাণনাশের হুমকির শিকার জেলার ৩৬ সাংবাদিকের নিরাপত্তার দাবিও জানানো হয়।

লক্ষ্মীপুর : প্রেস ক্লাবের সামনে অনুষ্ঠিত মানববন্ধন থেকে বক্তারা অবিলম্বে হত্যাকারীদের গ্রেপ্তার করা না হলে হরতালসহ কঠোর কর্মসূচি ঘোষণার হুঁশিয়ারি দেন। বক্তব্য দেন কামাল হোসেন, জহির উদ্দিন, সাইফুল ইসলাম স্বপন প্রমুখ।

মেহেরপুর : প্রেস ক্লাবের সামনে গতকাল অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন রশিদ হাসান খান আলো, কামারুজ্জামান খান, তোজাম্মেল আজম, মিজানুর রহমান, আলামিন হোসেন, গোলাম মোস্তফা, ইয়াদুল মোমিন, মুজাহিদ মুন্না প্রমুখ।

 


মন্তব্য