kalerkantho

বুধবার । ৭ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৬ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


নিহত আকাশের ঘনিষ্ঠ এক নারী ‘জঙ্গি’ গ্রেপ্তার

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি   

১৮ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



গাজীপুরে নিহত জেএমবি জঙ্গি ফরিদুল ইসলাম ওরফে আকাশের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক থাকা ও তাঁর প্রতিবেশী এক নারীকে গ্রেপ্তার করেছে সিরাজগঞ্জ পুলিশ। আকলিমা খাতুন ওরফে আছিয়া (২৫) নামের এই নারী জেএমবির একটি আত্মঘাতী ইউনিটের প্রধান বলে পুলিশ দাবি করেছে।

গত শনিবার মধ্যরাতে তাঁকে সিরাজগঞ্জের কড্ডার মোড় থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ শেষে গত রবিবার সন্ধ্যায় আছিয়াকে আটকের খবর সাংবাদিকদের জানান পুলিশের গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) ওসি মো. ওয়াহেদুজ্জামান।

ওসি আরো জানান, আছিয়াকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পাঁচ দিনের হেফাজত চেয়ে গতকাল সোমবার আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। আগামীকাল বুধবার এ আবেদনের শুনানি করবেন আদালত। জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে জেএমবির এই নারী সদস্যের কাছ থেকে আরো অনেক গুরুত্বপূর্ণ ও চাঞ্চল্যকর তথ্য পাওয়া যাবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

আছিয়ার বাড়ি সিরাজগঞ্জের কাজিপুর উপজেলার বরইতলা পশ্চিমপাড়া গ্রামে। কাজিপুর সরকারি মনসুর আলী কলেজের স্নাতক শেষ বর্ষের এই ছাত্রী ওই এলাকার স্বর্ণকার আব্দুল আজিজের মেয়ে।

গত ৮ অক্টোবর গাজীপুরে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর অভিযানে নিহত ৯ জঙ্গির মধ্যে ফরিদুল ইসলাম ওরফে আকাশ একজন। তাঁর মাধ্যমেই আছিয়া জামা’আতুল মুজাহিদীন বাংলাদেশে (জেএমবি) যোগ দেন বলে ডিবি সূত্রে জানা গেছে।

আকাশের মা ও বোন গ্রেপ্তার হওয়ার পর থেকেই আছিয়া পলাতক ছিলেন। তাঁর বাবা ও স্বজনরাও পলাতক রয়েছে বলে এলাকাবাসী জানায়।

সিরাজগঞ্জ ডিবির ওসি মো. ওয়াহেদুজ্জামান সাংবাদিকদের জানান, জেএমবির নিহত সামরিক কমান্ডার আকাশের মা ও দুই বোনসহ জঙ্গিগোষ্ঠীটির চার আত্মঘাতী নারী সদস্যকে গত ৫ সেপ্টেম্বর আটক করা হয়। ডিবি ও আদালতের কাছে তাদের দেওয়া স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে আছিয়ার নাম উঠে আসে। আকাশের মা-বোন আটক হওয়ার পর তিনিসহ ওই এলাকার আরো চারজন গা ঢাকা দেয়।


মন্তব্য