kalerkantho

শুক্রবার । ৯ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক

চার লেনে উন্নীত করতে সহযোগিতা চাইলেন মোমেন

সিলেট অফিস   

১৭ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



২০১৮ সালের মধ্যে ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক চার লেনে উন্নীত হচ্ছে জানিয়ে সবার কাছে ইতিবাচক সহযোগিতা চেয়েছেন জাতিসংঘে বাংলাদেশের সাবেক স্থায়ী প্রতিনিধি ড. এ কে আব্দুল মোমেন। এ ছাড়া তিনি বলেছেন, সিলেট থেকে আখাউড়া পর্যন্ত রেললাইন মিটার গেজ থেকে ব্রডগেজে উন্নীত করা হচ্ছে।

এটি সম্পন্ন হলে তিন ঘন্টায় ঢাকা থেকে সিলেট যাতায়াত সম্ভব হবে।

গতকাল রবিবার বিকেলে সিলেট নগরের হাফিজ কমপ্লেক্সে সংবাদ সম্মেলন করে এসব কথা জানান আব্দুল মোমেন। গত শুক্রবার চীনের প্রেসিডেন্ট শি চিনপিংয়ের বাংলাদেশ সফরকালে এই দুটি প্রকল্পের চুক্তি স্বাক্ষর হয়েছে বলে জানান তিনি।

সংবাদ সম্মেলন সঞ্চালন করেন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বদর উদ্দিন আহমদ কামরান। এতে আরো উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি লুত্ফুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদ উদ্দিন আহমদ প্রমুখ।

আব্দুল মোমেন বলেন, ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক চার লেনে উন্নীত করতে ২২ বছর ধরে দাবি জানিয়ে আসছে সিলেটের মানুষ। একটা পর্যায়ে চার লেনের বিষয়টি আটকে যায়। বিষয়টি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলার সুযোগ তাঁর হয়েছিল।

মোমেন বলেন, প্রধানমন্ত্রীর কাছে প্রস্তাব তুলতেই তিনি সম্মতি দেন। এরপর চার লেনের বিষয়টি এ পর্যায়ে নিয়ে আসতে প্রধানমন্ত্রী, অর্থমন্ত্রী এবং সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের সবচেয়ে বড় ভূমিকা রেখেছেন। তিনি আরো বলেন, ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক চার লেনে উন্নীত করতে কিছু জমি অধিগ্রহণ করতে হবে। এ বিষয়ে সবার ইতিবাচক সহযোগিতা প্রয়োজন।

আব্দুল মোমেন বলেন, সড়ক ও রেললাইনের কাজ শেষ হলে তা পর্যটন নগর সিলেটে পর্যটন ও শিল্প-কারখানার বিকাশে বড় ভূমিকা রাখবে।

আগামী জাতীয় নির্বাচনে সিলেট-১ আসন থেকে প্রার্থী হচ্ছেন কি না—এ রকম প্রশ্নের জবাবে ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেন, ‘কে প্রার্থী হবেন সেই সিদ্ধান্ত দল নেবে। আমাদের কাজ হবে দলীয় প্রার্থী যেই হোন তাঁর জন্য কাজ করে যাওয়া। ’


মন্তব্য