kalerkantho

সোমবার । ৫ ডিসেম্বর ২০১৬। ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


এমপি রানার জামিন আবেদন ফের নামঞ্জুর

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি   

১৭ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগের নেতা মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমেদ হত্যা মামলায় কারাগারে থাকা একই দলের সংসদ সদস্য আমানুর রহমান খান রানার জামিন আবেদন আবারও নামঞ্জুর হয়েছে। এর আগেও তিনি দুইবার জামিন চেয়েছিলেন।

গতকাল রবিবার দুপুরে টাঙ্গাইল-৩ (ঘাটাইল) আসনের সংসদ সদস্য রানার আইনজীবীরা তৃতীয়বারের মতো তাঁর জামিনের আবেদন করেন টাঙ্গাইলের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ প্রথম আদালতে। শুনানির পর বিচারক আবুল মনসুর মিয়া আবেদন নামঞ্জুর করেন।

রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন অতিরিক্ত পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) অ্যাডভোকেট মুনিরুল ইসলাম খান। তাঁকে সহায়তা করেন বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট জোয়াহেরুল ইসলাম জোয়াহের এবং এস আকবর খানসহ অন্য আইনজীবীরা। আসামির পক্ষে জামিন শুনানি করেন অ্যাডভোকেট আব্দুল বাকি মিয়াসহ আরো কয়েকজন আইনজীবী।

উল্লেখ্য, গত ১৮ সেপ্টেম্বর টাঙ্গাইলের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করেন সংসদ সদস্য আমানুর রহমান খান রানা। আদালত আবেদন নামঞ্জুর করে তাঁকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। পরদিন তাঁকে টাঙ্গাইল জেলা কারাগার থেকে গাজীপুরের কাশিমপুর কারাগারে স্থানান্তর করা হয়। এরপর গত ২৬ সেপ্টেম্বর তিনি একই আদালতে আবার জামিন আবেদন করেন। সেই আবেদনও নাকচ করেন বিচারক।

প্রসঙ্গত, ২০১৩ সালের ১৮ জানুয়ারি রাতে টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগের প্রভাবশালী নেতা মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমেদকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় তাঁর কলেজপাড়া এলাকার বাসার কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়। টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে নেওয়ার পর চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। ঘটনার তিন দিন পর ফারুকের স্ত্রী নাহার আহমেদ বাদী হয়ে অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিদের আসামি করে টাঙ্গাইল মডেল থানায় মামলা করেন। প্রথমে মামলাটি টাঙ্গাইল মডেল থানা পুলিশ তদন্ত করলেও পরে জেলা পুলিশের গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) মামলাটি তদন্ত করে। তদন্তের একপর্যায়ে আনিসুর রহমান রাজা ও মোহাম্মদ আলী নামের দুজনকে গ্রেপ্তার করা হয়।


মন্তব্য