kalerkantho


ওবায়দুল কাদের বললেন

আওয়ামী লীগের সম্মেলনে ফোকাস হবে জয়

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৯ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



আওয়ামী লীগের সম্মেলনে ফোকাস হবে জয়

আওয়ামী লীগের এবারের সম্মেলনে দলের ভবিষ্যৎ নেতা বঙ্গবন্ধুর নাতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছেলে সজীব ওয়াজেদ জয়কে তুলে ধরা হবে বলে জানিয়েছেন দলের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ওবায়দুল কাদের।

গতকাল শনিবার দুপুরে ধানমণ্ডির প্রিয়াঙ্কা কমিউনিটি সেন্টারে আওয়ামী লীগের ২০তম জাতীয় সম্মেলন প্রস্তুতির সাজসজ্জা উপকমিটির বৈঠকে নেতাকর্মীদের উদ্দেশে ওবায়দুল কাদের এ কথা বলেন। আগামী ২২ ও ২৩ অক্টোবর দলের জাতীয় সম্মেলন ও কাউন্সিল অনুষ্ঠিত হবে।

সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘২০তম জাতীয় সম্মেলনের মধ্য দিয়ে ব্যক্তিগত সৌজন্যমূলক পোস্টার, ব্যানার, ফেস্টুন ও বিলবোর্ড পরিহার করে, সব কিছু দলের কাছে নিয়ে আসতে হবে। আমাদের দলের ভবিষ্যৎ নেতা সজীব ওয়াজেদ জয়কে ফোকাস করতে হবে। এবারের জাতীয় সম্মেলনে ফোকাস হবে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও আমাদের ভবিষ্যৎ নেতা সজীব ওয়াজেদ জয়। ’

বিএনপির সমালোচনা করে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘বিএনপি সরকারবিরোধী দল হিসেবে কার্যকর ভূমিকা পালনে ব্যর্থ। তারা আজ নিজেদের ওপর হতাশ। তারা ভারতের ওপর হতাশ। এখন যুক্তরাষ্ট্রের নির্বাচনের দিকে তাকিয়ে আছে, নির্বাচনে কে জেতেন, তাদের ক্ষমতায় বসিয়ে দেবেন। দেশের জনগণের প্রতি তাদের কোনো আস্থা নেই। তবে শেখ হাসিনার শক্তির উৎস এ দেশের জনগণ। ’

কাউন্সিল সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়ে দলীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আওয়ামী লীগের এখন প্রকাশ্য কোনো শত্রু নেই। তবে তাদের গোপন তত্পরতা বন্ধ হয়ে গেছে, এটা মনে করার কারণ নেই। কারণ এ ধরনের বর্ণাঢ্য স্বতঃস্ফূর্ত সমাবেশ ভালোভাবে হবে, এটা কি আমাদের শত্রুরা চাইবে? চাইবে না। এই গোপন শত্রু সাম্প্রদায়িক উগ্রবাদীদের বিষয়ে সতর্ক থাকতে হবে। ’

সম্মেলন উপলক্ষে বহিষ্কৃত নেতাকর্মীদের দলে ফিরিয়ে আনার সিদ্ধান্ত প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘সম্মেলন উপলক্ষে শৃঙ্খলা ভঙ্গে অভিযুক্ত অনেককে নেত্রী ক্ষমা করেছেন। কিন্তু এটাকে স্থায়ী ক্ষমা মনে করার কারণ নেই। ক্ষমা করেছেন যেন আপনি ওই শৃঙ্খলা ভঙ্গের পুনরাবৃত্তি না ঘটান। আর এই মুহূর্তে কেউ যদি শৃঙ্খলা ভঙ্গ করে, তাহলে তাকে কিন্তু শাস্তি পেতে হবে। দল করলে নিয়ম মানতে হবে। ’

বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন মঞ্চ সাজসজ্জা উপকমিটির আহ্বায়ক জাহাঙ্গীর কবির নানক। বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতা ও উপকমিটির সদস্য সাহারা খাতুন, মির্জা আজম, সুজিত রায় নন্দী, নাজমা আক্তার, লিয়াকত শিকদার, গোলাম সরোয়ার কবির, বদিউজ্জামান সোহাগ প্রমুখ।


মন্তব্য