kalerkantho


কালিয়াকৈরে খোকার জমি বাজেয়াপ্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক, গাজীপুর ও কালিয়াকৈর প্রতিনিধি   

২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



আদালতের নির্দেশ অনুযায়ী গাজীপুরের কালিয়াকৈরে ঢাকা সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র ও বিএনপি নেতা সাদেক হোসেন খোকার মালিকানাধীন ৬৬.৫৬ একর জমি বাজেয়াপ্ত করেছে প্রশাসন। গতকাল রবিবার সন্ধ্যা সোয়া ৭টার দিকে কালিয়াকৈর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ ছানোয়ার হোসেন ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) সিরাজুল ইসলাম মৌচাক ইউনিয়নের পাঁচটি এবং শ্রীফলতলী ইউনিয়নের একটি মৌজায় ওই জমিতে সাইনবোর্ড ও লাল নিশান টাঙিয়ে দেন। কালিয়াকৈর থানার ওসি আবদুল মোতালেব মিয়ার নেতৃত্বে পুলিশ সদস্যরা তাঁদের সঙ্গে ছিলেন।

সাইনবোর্ডে লেখা রয়েছে, ‘বিজ্ঞ বিশেষ জেলা জজ আদালত ০৩ ঢাকার বিশেষ মামলা নং ০২/২০১৫-এর বিগত ২০-১১-১৫ ইং তারিখে প্রদত্ত রায় মোতাবেক বাজেয়াপ্তকৃত সরকারি সম্পত্তি’।

স্থানীয় প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, কালিয়াকৈর উপজেলার বাঁশতলী, তালতলী, কালিয়াদহ, কাঁচারস, জানেরচালা ও উওর রাঙ্গামাটি এলাকায় বুড়িগঙ্গা ইন্ডাস্ট্রিজের নামে ৮৮.৭৪ একর জমি রয়েছে। এ প্রতিষ্ঠানের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সাদেক হোসেন খোকার স্ত্রী ইসমতারা বেগম। ওই জমিতে খোকার ৭৫ শতাংশ মালিকানা রয়েছে। আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী খোকার মালিকানার ৬৬.৫৬ একর জমি প্রশাসন বাজেয়াপ্ত করে।  

ইউএনও ছানোয়ার হোসেন জানান, সাদেক হোসেন খোকার জমি বাজেয়াপ্তে আদালতের আদেশের কপি জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে রবিবার সকালে পান তিনি। যাচাই-বাছাই শেষে মৌচাক ইউনিয়নের কালিয়াদহ, বাঁশতলী, তালতলী, কাঁচারস, উত্তর রাঙ্গামাটি মৌজার ৬২.৬১ এবং শ্রীফলতলী ইউনিয়নের জানেরচালা মৌজায় ৩.৯৫ একর মিলিয়ে খোকার ৬৬.৫৬ একর জমি বাজেয়াপ্ত করেন। এসব জমি সরকারের খাস খতিয়ানে নেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে।

বাজেয়াপ্ত করা জমি রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে কালিয়াকৈর থানার ওসিকে। গাজীপুরের জেলা প্রশাসক এম এম আলম জানান, আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী সাদেক হোসেন খোকার ওই জমি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।  

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) দায়ের করা মামলায় গত বছরের ২০ অক্টোবর গোপন ও অবৈধ সম্পদ অর্জনের দায়ে সাদেক হোসেনকে ১৩ বছরের কারাদণ্ড দেন আদালত। রায়ে খোকা অবৈধভাবে ১০ কোটি পাঁচ লাখ ২১ হাজার ৮৩২ টাকার সম্পদের মালিক হয়েছেন উল্লেখ করে ওই সম্পদ রাষ্ট্রের অনুকূলে বাজেয়াপ্ত করার নির্দেশ দেন আদালত। এরপর আদালতের নির্দেশে স্থানীয় প্রশাসন খোকার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার উদ্যোগ নেয়।


মন্তব্য