kalerkantho

শনিবার । ১০ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


সন্ত্রাসবাদের অভিযোগ

মালয়েশিয়ায় গ্রেপ্তারের পর বাংলাদেশিকে দেশে ফেরত

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



মালয়েশিয়ায় সন্ত্রাসবাদে জড়িত সন্দেহে ইন্টারপোলের পরোয়ানাভুক্ত এক বাংলাদেশি রেস্তোরাঁ মালিকসহ চারজনকে গ্রেপ্তার করেছে দেশটির পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃতদের মধ্যে তিনজনই বিদেশি নাগরিক; তাদের ইতিমধ্যেই নিজ নিজ দেশে ফেরত পাঠানো হয়েছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার মালয়েশিয়ান পুলিশের বিজ্ঞপ্তির বরাত দিয়ে চ্যানেল নিউজ এশিয়া, ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস টাইমস ও দ্য স্টার অনলাইন এ খবর জানিয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, গত ২ আগস্ট থেকে ১৭ সেপ্টেম্বরের মধ্যে গ্রেপ্তার করা হয়েছে ওই চারজনকে। গ্রেপ্তারকৃতদের মধ্যে একজন বাংলাদেশের, একজন নেপালের, একজন মরক্কোর ও একজন মালয়েশিয়ার নাগরিক। গ্রেপ্তারকৃত কারো নাম প্রতিবেদনে প্রকাশ করা হয়নি।

পুলিশের বিজ্ঞপ্তির বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ৩৭ বছর বয়সী বাংলাদেশি ওই ব্যক্তি কুয়ালালামপুরের বুকিত বিনতাংয়ে একটি রেস্তোরাঁ চালাতেন। একটি ‘আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসী সংগঠনের ব্যবহারের জন্য অস্ত্র পাচারে’ জড়িত থাকার অভিযোগ আনা হয় তাঁর বিরুদ্ধে। তাঁর নামে ইন্টারপোলের ‘রেড নোটিশ’ও জারি হয়েছিল। গত ১৯ আগস্ট তাঁকে গ্রেপ্তারের পর ২ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশে ফেরত পাঠানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, গ্রেপ্তার ওই নেপালি নাগরিক মালয়েশিয়ায় একটি বিনোদন আউটলেটের ব্যবস্থাপক ছিলেন। আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসী সংগঠনের সদস্যদের ব্যবহারের জন্য ভ্রমণের ভুয়া কাগজপত্র তৈরির সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়। আর মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের (আইএস) সদস্য সন্দেহে মরক্কোর সেই নাগরিককে গ্রেপ্তার করা হয়। পুলিশ বলছে, সিরিয়ায় অনুপ্রবেশের চেষ্টার পর তুরস্কেও তিনি এর আগে গ্রেপ্তার হয়েছিলেন। আর গ্রেপ্তার হওয়া মালয়েশিয়ান ব্যক্তি এক ব্যবসায়ীর ব্যক্তিগত গাড়িচালক। ফেসবুকে আইএসের কর্মকাণ্ডের সক্রিয় সমর্থক মোহাম্মদ ওয়ানদি মোহাম্মদ জেদি নামের এক ব্যক্তির সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক রয়েছে বলে ধারণা করছে পুলিশ।


মন্তব্য