kalerkantho


রাজনগরের পাঁচ রাজাকারের বিরুদ্ধে শুনানি ২ নভেম্বর

ফুলবাড়িয়ার দুজনের বিরুদ্ধে ফরমাল চার্জ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



রাজনগরের পাঁচ রাজাকারের বিরুদ্ধে শুনানি ২ নভেম্বর

মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় মৌলভীবাজারের রাজনগর উপজেলার পাঁচ রাজাকারের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের শুনানি আগামী ২ নভেম্বর গ্রহণ করবেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল। আসামিদের মধ্যে পলাতক তিনজনের বিষয়ে পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের আদেশ বাস্তবায়নের পর গতকাল বুধবার এ দিন ধার্য করা হয়।

মামলার পলাতক আসামিরা হলেন শামসুল হোসেন তরফদার ওরফে আশরাফ, নেছার আলী ও মোবারক মিয়া। তাদের আত্মসমর্পণ করতে পত্রিকার বিজ্ঞপিত প্রকাশের জন্য গত ২৪ জুলাই আদেশ দেন ট্রাইব্যুনাল। গতকাল আদেশ বাস্তবায়নের বিষয়টি প্রসিকিউটর আবুল কালাম ট্রাইব্যুনালকে জানান। পরে বিচারপতি আনোয়ারুল হকের নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের ট্রাইব্যুনাল অভিযোগ গঠনের ওপর শুনানির দিন ধার্য করেন। মামলার বাকি দুই আসামি ইউনুস আহমেদ ও ওজায়ের আহমেদ চৌধুরী বর্তমানে কারাগারে বন্দি।

গত ২৬ মে এই পাঁচ রাজাকারের বিরুদ্ধে মুক্তিযুদ্ধের সময় গণহত্যা, হত্যা, অপহরণ, আটক, নির্যাতন, লুটপাট ও আটকে রেখে নির্যাতনের পাঁচটি অভিযোগসংবলিত আনুষ্ঠানিক অভিযোগ (ফরমাল চার্জ) ট্রাইব্যুনালে দাখিল করে প্রসিকিউশন। এর আগে ২০১৪ সালের ১২ অক্টোবর এই পাঁচ আসামির বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করে ট্রাইব্যুনালের সংস্থা।

ফুলবাড়িয়ার দুই রাজাকারের বিরুদ্ধে ফরমাল চার্জ : মুক্তিযুদ্ধকালীন মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় ময়মনসিংহের ফুলবাড়িয়া থানার দুই আসামি রিয়াজউদ্দিন ফকির ও ওয়াজউদ্দিন ফকিরের বিরুদ্ধে পাঁচ অভিযোগসংবলিত আনুষ্ঠানিক অভিযোগ (ফরমাল চার্জ) ট্রাইব্যুনালে দাখিল করেছে প্রসিকিউশন। এসব অভিযোগের মধ্যে রয়েছে একাত্তরের গণহত্যা, হত্যা, অপহরণ, আটক ও নির্যাতনের ঘটনা।

গতকাল আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে ফরমাল চার্জ দাখিল করা হলে এ বিষয়ে পরবর্তী শুনানির জন্য আগামী ২২ নভেম্বর দিন ধার্য করেন ট্রাইব্যুনাল।

দুই আসামির মধ্যে রাজাকার রিয়াজউদ্দিন ফকির গ্রেপ্তার হয়ে কারাগারে রয়েছেন, আরেক আসামি ওয়াজউদ্দিন ফকির পলাতক। এ মামলায় মোট আসামি ছিলেন তিনজন। অপর আসামি আমজাদ হাজি সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হলে তার নাম বাদ দেওয়া হয়।


মন্তব্য