kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ঢাকায় ফিরতে পথে পথে ভোগান্তি

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



ঢাকায় ফিরতে পথে পথে ভোগান্তি

ঈদের ছুটি শেষে ঢাকায় কর্মস্থলে ফিরছে লাখো মানুষ। অনেকটা ঝুঁকি নিয়ে বাস, ট্রেন ও লঞ্চের ছাদে ওপর দেখা গেছে তাদের। ছবিটি বগুড়ার বনানী থেকে তোলা। ছবি : কালের কণ্ঠ

ঈদের ছুটি কাটিয়ে বিভিন্ন স্থান থেকে ঢাকায় ফিরছে কর্মজীবী মানুষ। এতে অনেকটা ঝুঁকি নিয়ে বাস, লঞ্চ ও ট্রেনে ফিরছে তারা।

অনেক যানবাহন অতিরিক্ত যাত্রী বহন করছে। কোথাও কোথাও যাত্রীদের কাছ থেকে নেওয়া হচ্ছে বাড়তি ভাড়া। পথে অতিরিক্ত যানবাহন নামায় সৃষ্টি হচ্ছে যানজট।

দৌলতদিয়া ঘাটে দীর্ঘ যানজট এবং যানবাহনগুলোতে অধিক ভাড়া আদায় করায় সাধারণ মানুষ বেছে নিয়েছে ট্রেন। এ ক্ষেত্রে জীবনের ঝুঁকি নিতেও দ্বিধা করছে না যাত্রীরা। পটুয়াখালী লঞ্চঘাটে রয়েছে যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড়। অনেকটা ঝুঁকি নিয়ে ঢাকার উদ্দেশে রওনা দিচ্ছে লঞ্চগুলো। যশোর-ঢাকা রুটে অতিরিক্ত বাসভাড়া আদায় করা হচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। বাসভাড়া ১০০ থেকে ৬০০ টাকা পর্যন্ত বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। বিস্তারিত আমাদের বিশেষ প্রতিনিধি, নিজস্ব প্রতিবেদক ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবরে—

গতকাল রবিবার সকালে রাজবাড়ীর রেলস্টেশন ও বাসস্ট্যান্ডগুলোতে গিয়ে দেখা যায়, ঢাকামুখী হাজারো যাত্রী বিড়ম্বনার শিকার হচ্ছে। বাস, ট্রাক, মাহেন্দ্র, নছিমন, অটোরিকশাগুলো মানুষে পূর্ণ। যে যেভাবে পারছে যাচ্ছে দৌলতদিয়া ঘাটের উদ্দেশে।

পটুয়াখালী লঞ্চঘাটে ছিল যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড়। গাদাগাদি করে সবাই উঠছে লঞ্চে। অতিরিক্ত যাত্রীদের কর্মস্থলে পৌঁছে দিতে প্রতিদিনই পটুয়াখালী লঞ্চঘাট থেকে নির্ধারিত লঞ্চের বাইরে অতিরিক্ত ছয়টি লঞ্চ ঢাকা অভিমুখে চলাচল করছে। যশোর-ঢাকা বাসভাড়া ১০০ থেকে ৬০০ টাকা পর্যন্ত বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। গত ১৪ সেপ্টেম্বর থেকে এই বাড়তি ভাড়া আদায় করা হচ্ছে। কিন্তু দেখার কেউ নেই।


মন্তব্য