kalerkantho

সোমবার । ৫ ডিসেম্বর ২০১৬। ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


খালের দখল নিয়ে আ. লীগে সংঘর্ষ গুলি, আহত ৫

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী   

১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



রাজশাহীর দুর্গাপুর ও বাগমারা উপজেলার সীমান্তবর্তী এলাকায় একটি খালের দখল নিয়ে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। এ সময় গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে।

গতকাল রবিবার সন্ধ্যার দিকে খালে সুতি জাল দিয়ে মাছ ধরাকে কেন্দ্র করে এ সংঘর্ষের সূত্রপাত।

এ ঘটনায় দুর্গাপুরের কয়ামজমপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আফছার আলীর ছেলে রিপন আলী, রতন আলীসহ অন্তত পাঁচজন আহত হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, কয়েক দিন ধরেই খালে মাছ ধরাকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা চলছিল। এ দুটি পক্ষ হলো দুর্গাপুরের কয়ামজমপুর ইউনিয়ন পরিষদের আওয়ামী লীগ দলীয় চেয়ারম্যান আফছার আলী ও বাগমারার তাহেরপুর পৌরসভার একই দলের মেয়র আবুল কালাম আজাদের অনুসারী।

গত শনিবার বিকেলে দুই পক্ষের মধ্যে এক দফা উত্তেজনা ছড়ায়। এর মধ্যেই গতকাল সন্ধ্যার দিকে আফছার চেয়ারম্যানের দুই ছেলে রিপন ও রতনের নেতৃত্বে পুরান তাহেরপুর এলাকার লোকজন খাল দখল নিতে যায়। এ সময় প্রতিপক্ষ তাহেরপুর পৌরসভার মেয়র আবুল কালাম আজাদের অনুসারীরা বাধা দেয়। এ নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। পরে কালামের অনুসারীরা কয়েক রাউন্ড পিস্তলের গুলি ছুড়ে ভীতিকর পরিস্থিতি সৃষ্টি করে। একপর্যায়ে তারা রিপন, রতনসহ তাদের লোকজনকে ধরে মারধর করে তাড়িয়ে দেয়।

দুর্গাপুর থানার ওসি রুহুল আমিন বলেন, ‘ঘটনাটি আমার জানা নেই। এ ধরনের ঘটনা ঘটে থাকলে এবং অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ’


মন্তব্য