kalerkantho

রবিবার । ১১ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


আসামির স্ত্রীকে ধর্ষণ

এসআইকে বাঁচিয়ে দুই সোর্সের ডিএনএ পরীক্ষার আবেদন

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি   

৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



ধর্ষণের অভিযোগ ওঠার পরও নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আতাউর রহমানের ডিএনএ পরীক্ষার আবেদন করেনি পুলিশ। তাঁকে বাঁচিয়ে গ্রেপ্তার দুই সোর্সের ডিএনএ টেস্টের আবেদন করা হয়েছে।

গতকাল রবিবার নারায়ণগঞ্জ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ইশরাত জাহানের আদালত তদন্তকারী কর্মকর্তার এ আবেদন মঞ্জুর করেন। নারায়ণগঞ্জ কোর্ট পুলিশের এসআই গোলাম হোসেন জানান, নির্যাতনের ভয় দেখিয়ে আসামির স্ত্রীকে যৌন নির্যাতনের ঘটনার তদন্তকারী কর্মকর্তা হলেন থানার পরিদর্শক (তদন্ত) রফিকুল ইসলাম। হাসপাতালে দুই নারীর স্বাস্থ্য পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে।

এদিকে ঘটনার শুরুতে এসআই আতাউরের নাম এলেও পুলিশ তাঁর নাম বাদ দিয়ে মামলা নিয়েছে। এর পেছনে কয়েক লাখ টাকার লেনদেনের অভিযোগ উঠেছে। এর পরিপ্রেক্ষিতে এসআইয়ের ডিএনএ পরীক্ষার দাবি উঠেছে।

উল্লেখ্য, গত বুধবার রাতে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার পাশে স্বামীকে নির্যাতনের ভয় দেখিয়ে সোর্স নজরুলের ভাড়া বাসায় নির্যাতন করা হয় আসামির দুই স্ত্রীকে (সতিন)। এর সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগ ওঠে সোর্স নজরুল, শুভ ও এসআই আতাউরের বিরুদ্ধে। পরবর্তী সময়ে পুলিশের তদন্ত কমিটি আতাউরকে বাদ দিয়ে দুই সোর্সকে দোষী সাব্যস্ত করে।


মন্তব্য