kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


নবীনগর আ. লীগ নেতা ফুল মিয়ার বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি   

৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



নবীনগর আ. লীগ নেতা ফুল মিয়ার বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও নবীনগর পূর্ব ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মো. ফুল মিয়ার বিরুদ্ধে মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগের তদন্ত শুরু হয়েছে।

হরি দেবনাথের নেতৃত্বে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের তিন সদস্যের একটি দল গতকাল রবিবার নবীনগরে এসে তদন্তকাজ শুরু করে।

আজ সোমবার পর্যন্ত দলটি নবীনগরে অবস্থান করবে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, দুপুরে তদন্তদল নবীনগর ডাকবাংলোয় স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধা ও মামলার সাক্ষীদের সঙ্গে কথা বলে। এর আগে তদন্তদলের সদস্যরা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ আজিজুল ইসলাম, সহকারী পুলিশ সুপার (নবীনগর সার্কেল) মো. আলাউদ্দিন, ওসি মো. ইমতিয়াজ আহমেদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন।

নবীনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আজিজুল ইসলাম ও উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার মো. এমদাদুল হক সাংবাদিকদের এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তাঁরা জানান, ফুল মিয়ার বিরুদ্ধে দায়ের হওয়া অভিযোগের তদন্ত করতে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের দলটি নবীনগরে এসেছে।

উল্লেখ্য, ১১ আগস্ট ব্রাহ্মণবাড়িয়া আদালতে ফুল মিয়ার বিরুদ্ধে মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগ আনেন নবীনগর উপজেলার শ্রীরামপুর গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা মো. আউয়াল মিয়া। আদালত এক আদেশে বাদিকে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে অভিযোগ জমা দেওয়ার পরামর্শ দেন। গত ১৬ আগস্ট ট্রাইব্যুনালে অভিযোগটি দায়ের করেন বাদি। এতে ফুল মিয়ার বিরুদ্ধে একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে হত্যাসহ বেশ কয়েকটি অভিযোগ আনা হয়।

এদিকে মামলার বাদি আউয়াল মিয়ার ওপর ঢাকায় হামলার ঘটনায় গত শনিবার সকালে নবীনগর পৌর এলাকা থেকে ফুল মিয়ার ছেলে শাকিল রেজা (২৮), তাঁর নিকটাত্মীয় মদন কাজীর ছেলে কাজী সুমন (২৮) ও আলী হোসেনের ছেলে সাদিকুল হক সাদিরকে (৪৫) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। মামলা করায় বাদির ওপর হামলার অভিযোগে তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়।


মন্তব্য