kalerkantho


মাধবপুরে তিন খুন, মামলা ডিবিতে

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি   

৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



হবিগঞ্জের মাধবপুরে চাঞ্চল্যকর তিন খুনের মামলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশে হস্তান্তরের সিদ্ধান্ত হয়েছে। এর আগে মাধবপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সাজেদুল ইসলাম মামলাটি তদন্ত করছিলেন।

গত ২৩ আগস্ট রাতে উপজেলার বীরসিংহপাড়া গ্রামে শাহ আলম তাহের নামের এক যুবক ছুরিকাঘাতে তাঁর ভাবি জাহানারা, ভাতিজি শারমিন ও প্রতিবেশী শিমুলকে খুন করে। এ ঘটনায় থানা ও আদালতে চারটি হত্যা মামলা হয়। ২৪ আগস্ট সকালে শারমিনের স্বামী কামাল হোসেন থানায় তাহেরকে প্রধান আসামি করে ১২ জনের নামে একটি হত্যা মামলা করেন। রাতে জাহানারার দুলাভাই হাজি মোহন মিয়া তাহেরকে একমাত্র আসামি করে থানায় একটি মামলা করেন। পরে আদালতে গিয়ে তিনি এ মামলা করেননি বলে হলফনামা দেন। জাহানারার স্বামী গিয়াস উদ্দিন তাহেরকে প্রধান আসামি করে আদালতে ১৩ জনের বিরুদ্ধে একটি মামলা করেন ৩০ আগস্ট। ৩১ আগস্ট শিমুলের বাবা শাহ আলম সাতজনের বিরুদ্ধে একটি মামলা করেন। পুলিশ রিপোর্ট দাখিল না করা পর্যন্ত আদালতে হওয়া মামলা দুটির কার্যক্রম স্থগিতাদেশ দিয়েছেন বিচারক।

মাধবপুর থানার ওসি মোকতাদির হোসেন জানান, পুলিশ সুপার জয়দেব কুমার তিন খুনের মামলাটি ডিবিতে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন।

হবিগঞ্জ ডিবি পুলিশের ওসি আজমেরী হোসেন জানান, এখনো মামলাটি তাঁর কাছে আসেনি। মামলাটি চাঞ্চল্যকর হওয়ায় ডিবিতে এলে তিনিই তদন্ত করবেন।

বিদ্যুত্স্পৃষ্টে হোটেল ব্যবসায়ীর মৃত্যু

বিদ্যুত্স্পৃষ্ট হয়ে সালেক মিয়া নামের এক হোটেল ব্যবসায়ীর মৃত্যু হয়েছে। গত শুক্রবার রাতে জেলা শহরের কিবরিয়া ব্রিজ এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার রাতে দমকা বাতাসে সালেক মিয়ার হোটেলের চালের ওপর বিদ্যুতের তার ছিঁড়ে পড়ে। এ সময় ভুলবশত তিনি চালে হাত দিলে বিদ্যুত্স্পৃষ্ট হন। স্থানীয় লোকজন তাঁকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। এ ছাড়া একই দিন সন্ধ্যায় বানিয়াচং উপজেলার কদুপুর গ্রামে পল্লী বিদ্যুতের খুঁটির চাপায় আব্দুস শহিদ নামের এক বৃদ্ধ নিহত হয়েছেন।


মন্তব্য