kalerkantho


সিভাসুর হাটহাজারী ক্যাম্পাসের ভিত্তি স্থাপন আজ

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

২ এপ্রিল, ২০১৬ ০০:০০



চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও এনিম্যাল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়ের (সিভাসু) রিসার্চ অ্যান্ড ফার্ম বেইজড ক্যাম্পাস নির্মিত হচ্ছে হাটহাজারীতে। আজ শনিবার হাটহাজারী সদরে ১০ একর জায়গার ওপর নির্মিতব্য এই ক্যাম্পাসের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।

নতুন ক্যাম্পাসের উদ্বোধন ও দুই দিনব্যাপী ১৩তম বার্ষিক বৈজ্ঞানিক সম্মেলন-২০১৬ উপলক্ষে গতকাল শুক্রবার চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। নগরীর পাহাড়তলি থানার জাকির হোসেন সড়কসংলগ্ন এলাকায় বিশ্ববিদ্যালয়টির মূল ক্যাম্পাস অবস্থিত।

সংবাদ সম্মেলনে সিভাসু উপাচার্য অধ্যাপক ড. গৌতম বুদ্ধ দাশ বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ক্যাম্পাসের আকার মাত্র সাত একর হওয়ায় ফার্ম, পুকুর ও ফুড প্রসেসিং প্লান্ট স্থাপন করা যায়নি। ফলে গবেষণা ও ব্যবহারিক কাজ পরিচালনায় অসুবিধা হচ্ছিল। গত ২৯ মার্চ ২৫তম একনেক সভায় সরকার আড়াই শ কোটি টাকার উন্নয়ন প্রকল্প অনুমোদন দিয়েছে, যা দিয়ে হাটহাজারী সদরে দশ একর জমির ওপর ক্যাম্পাস ও কক্সবাজারের দরিয়ানগরে পাঁচ একর জমিতে একটি ইনস্টিটিউট নির্মাণ করা হবে।

জুলাই থেকে শুরু হওয়া এ প্রকল্প তিন বছরের মধ্যে সম্পন্ন হবে জানিয়ে উপাচার্য বলেন, হাটহাজারীর ক্যাম্পাসটি মূলত মাস্টার্স ও পিএইচডির শিক্ষার্থীদের গবেষণার জন্য ব্যবহার করা হবে। এই ক্যাম্পাসে ক্লাস, পরীক্ষার পাশাপাশি শিক্ষার্থীরা হাতে-কলমে ব্যবহারিক গবেষণা করতে পারবে।   দেশের সমুদ্রাঞ্চলের সম্পদ গবেষণা ও বৈশ্বিক জলবায়ু পরিবর্তনে বাংলাদেশের ওপর প্রভাব গবেষণায় কক্সবাজারের দরিয়ানগরে স্থাপিত হতে যাওয়া‘ইনস্টিটিউট অব কোস্টাল বায়ো-ডাইভারসিটি, মেরিন ফিশারিজ অ্যান্ড ওয়াইল্ড লাইফ কনভারসেশন’ সাহায্য করবে।

এদিকে‘প্রমোটিং ফুড সেফটি, ওয়ান হেলথ অ্যান্ড ব্লু ইকোনমি’ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে একই দিনে বিশ্ববিদ্যালয়ের নগর ক্যাম্পাসে শুরু হচ্ছে বার্ষিক বিজ্ঞান সম্মেলন।

দুই দিনব্যাপী এই সম্মেলনে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করবেন নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আবুল হোসেন।


মন্তব্য