kalerkantho


আপিল বিভাগের রায়

সংবাদপত্র ও সংবাদ সংস্থার কর্মীদের আয়কর দেবে মালিকপক্ষ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৩১ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



সংবাদপত্র ও সংবাদ সংস্থার কর্মীদের বেতনের ওপর আরোপিত কর মালিকপক্ষকেই পরিশোধ করতে হবে বলে রায় দিয়েছেন দেশের সর্বোচ্চ আদালত সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহ্হাব মিয়ার নেতৃত্বে আপিল বিভাগের চার বিচারপতির বেঞ্চ গতকাল বুধবার চতুর্থ বেতন বোর্ডের (ওয়েজবোর্ড) এ-সংক্রান্ত ধারা বহাল রেখে এই রায় দিয়েছেন।

আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে আইনজীবী ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল রাশেদ জাহাঙ্গীর। তবে রিট আবেদনকারীর পক্ষে কেউ উপস্থিত ছিলেন না।

আপিল বিভাগের এই রায়ের ফলে অষ্টম ওয়েজবোর্ডের অধীন সংবাদপত্র ও সংবাদ সংস্থার মালিকদেরই আয়কর পরিশোধ করতে হবে।

১৯৯১ সালের ৯ মার্চ চতুর্থ সংবাদপত্র কর্মচারী বেতন রোয়েদাদ (চতুর্থ ওয়েজবোর্ড) ঘোষণা করা হয়। তাতে আয়কর দেওয়ার বিষয়ে বলা হয়, সব ক্যাটাগরির সংবাদপত্র ও সংবাদ সংস্থায় কর্মরত সব সাংবাদিক, প্রশাসনিক কর্মচারী এবং প্রেস শ্রমিকদের বেতনের (ওয়েজ) ওপর আরোপিত আয়কর আগের মতো সংবাদপত্র ও সংবাদ সংস্থার কর্তৃপক্ষকেই দিতে হবে। এই ধারার বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে সংবাদ লিমিটেড, ইনকিবাল এন্টারপ্রাইজ অ্যান্ড পাবলিকেশন্স লিমিটেড, খবর গ্রুপ অব পাবলিকেশন্স লিমিটেড, আজাদ পাবলিকেশন্স লিমিটেড ও ইত্তেফাক গ্রুপ অব পাবলিকেশন্স লিমিটেডের মালিক-কর্তৃপক্ষ ওই বছরই হাইকোর্টে রিট আবেদন করে। রিট আবেদনটির ওপর প্রাথমিক শুনানি শেষে হাইকোর্ট রুল জারি করেন। রুলে সংবাদপত্র-সংবাদ সংস্থার কর্মীর ওপর আরোপিত আয়কর কর্তৃপক্ষের পরিশোধ করার বিধান কেন বেআইনি ঘোষণা করা হবে না তা জানতে চাওয়া হয়। এ রুলের চূড়ান্ত শুনানি শেষে ১৯৯৭ সালের ১৪ আগস্ট হাইকোর্ট রায় দেন। রায়ে ওই ধারা অবৈধ ও বেআইনি ঘোষণা করা হয়। ওই রায়ের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষ ২০০৩ সালে আপিল করে। এ আপিলের ওপর গতকাল বুধবার শুনানি হয়। আদালত রাষ্ট্রপক্ষের আপিল মঞ্জুর করে রায় দেন।

গতকাল রায়ের পর রাশেদ জাহাঙ্গীর সাংবাদিকদের জানান, এখন আপিলের রায় অনুযায়ী অষ্টম ওয়েজবোর্ডের অধীন সংবাদপত্র ও সংবাদ সংস্থার মালিকদেরই আয়কর পরিশোধ করতে হবে।


মন্তব্য