kalerkantho


ব্যবসায়ীকে হত্যার অভিযোগ

তুরাগে ইজিবাইকে ওড়না পেঁচিয়ে গৃহবধূর মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২২ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



রাজধানীর মোহাম্মদপুর থানা এলাকার একটি বাসা থেকে কামরুল হোসেন (৪৫) নামে এ ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। পরিবারের দাবি, গতকাল নিজ বাসায় তাঁকে ফাঁস দিয়ে হত্যা করা হয়। পারিবারিক সম্পত্তির বিরোধের জের ধরে এ ঘটনা ঘটে।

এদিকে পৃথক ঘটনায় রাজধানীর তুরাগের সোনারগাঁও জনপথ সড়কের রূপায়ণ সিটির পাশে ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার (ইজিবাইক) চাকায় ওড়না পেঁচিয়ে সাথী (৩৩) নামে এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। তাঁর বাড়ি  তুরাগের নলভোগ এলাকায়। গতকাল সোমবার সকাল ৯টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত ব্যবসায়ীর মামা আবদুর রফিক বলেন, মোহাম্মদপুুর সলিমুল্লাহ রোডের ৯/২৩ নম্বর চার তলা ভবনের দ্বিতীয় তলায় পরিবার নিয়ে থাকতেন কামরুল হোসেন। গতকাল ভোরের দিকে ফাঁস দিয়ে ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করে পুলিশ। ওই সময় তাঁর দুই হাত পেছনের দিকে পিটমোড়া করে বাঁধা ছিল। আবদুর রফিক দাবি করেন, ঢাকায় তার পরিবারের দুটি বাড়ি নিয়ে পারিবারিক বিরোধ রয়েছে। আর এই বাড়ির দখল নিয়ে পারিবারিক বিরোধের কারণেই তাকে হত্যা করা হতে পারে।

তুরাগের ঘটনায় প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ জানায়, গতকাল সকাল সোয়া ৮টার দিকে সাথী তাঁর ছোট ছেলে নয়নকে নিয়ে উত্তরা ১১ নম্বর সেক্টর এভারগ্রিন স্কুলে যান। সন্তানকে স্কুলে পৌঁছে দিয়ে ইজিবাইকে করে নলভোগ এলাকায় ফিরছিলেন। সোনারগাঁও জনপথ সড়ক রূপায়ণ সিটির সামনে কাঁচাবাজারের সামনে তাঁর ওড়না ইজিবাইকের চাকায় পেঁচিয়ে যায়। এতে ওড়না দিয়ে ফাঁস লেগে তিনি ঘটনাস্থলে প্রাণ হারান।


মন্তব্য